আজঃ মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১
শিরোনাম

আবারও ভাঙছে কংগ্রেস

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৫ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৫ নভেম্বর ২০২১ | ২৬০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

মেঘালয়ে কংগ্রেসে বড়সড় ভাঙন ধরাল তৃণমূল। সূত্রের খবর, কংগ্রেস নেতা মুকুল সাংমা অন্তত ১২ জন বিধায়ককে নিয়ে দল ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিতে চলেছেন। এর ফলে মেঘালয়ে কংগ্রেসের বিধায়ক সংখ্যা ১৮ থেকে কমে হবে ৬। সেই হিসেবে মেঘালয়ে প্রধান বিরোধী দল হতে পারে তৃণমূল।

২০১০ থেকে ২০১৮ পর্যন্ত মেঘালয়ের মুখ্যমন্ত্রী ছিলেন মুকুল। বর্তমানে তিনি ওই রাজ্যের বিরোধী দলনেতা। পূর্ব গারো পাহাড়ের প্রভাবশালী নেতা মুকুল দল ছাড়লে মেঘালয়ে কংগ্রেসের বড় ক্ষতি হবে বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকেরা।

প্রসঙ্গত, ২০০৪ সালের লোকসভা ভোটের আগে মেঘালয়ের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা লোকসভার প্রাক্তন স্পিকার পি এ সাংমা এনসিপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দেন। সে বছর লোকসভা ভোটে তৃণমূলের টিকিটে জেতেন তিনি। প্রয়াত পূর্ণের ছেলে কনরাড বর্তমানে মেঘালয়ের মুখ্যমন্ত্রী এবং এনপিপি দলের প্রধান।

কিন্তু মুকুল হঠাৎ কেন কংগ্রেস ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিলেন? স্থানীয় সূত্রে খবর, মাস দেড়েক আগে তাঁর বিরোধী গোষ্ঠীর নেতা হিসেবে পরিচিত লোকসভার সাংসদ ভিনসেন্ট পালাকে মেঘালয় প্রদেশ কংগ্রেসের সভাপতি করা হয়। তার পর থেকেই তৃণমূলের সঙ্গে যোগাযোগ শুরু মুকুলের। এত দিনে তা পরিণতি পেল।

সুস্মিতা দেবের পর মুকুল এমন একজন নেতা তৃণমূলে যোগ দিতে চলেছেন, যাঁর উত্তর-পূর্বে জনভিত্তি রয়েছে।


আরও খবর



আজ আপনার জন্মদিন হলে

প্রকাশিত:রবিবার ৩১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ৩১ অক্টোবর ২০২১ | ৮১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আজ আপনার জন্মদিন হলে পাশ্চাত্য জ্যোতিষে আপনি বৃশ্চিক রাশির জাতক/ জাতিকা। আপনার জন্মসংখ্যা : ৪। আপনার ওপর প্রভাবকারী গ্রহ : মঙ্গল ও ইউরেনাস। আপনার শুভ সংখ্যা : ৪ ও ৯। শুভ বার : মঙ্গল ও রবি। শুভ রত্ন : গার্নেট ও রক্তপ্রবাল।

মেষ (২১ মার্চ-২০এপ্রিল)

নিজের মনোভাব স্পষ্ট ভাবে প্রকাশ করুন। সে ক্ষেত্রে সাফল্য পেতে পারেন। বিদ্যার্থীদের জন্য দিনটি শুভ। পড়াশোনায় মন বসাতে পারবেন। সন্তানের প্রতি খেয়াল রাখুন।

বৃষ (২১ এপ্রিল-২০মে)

মাতৃস্বাস্থ্য ভালো যেতে পারে। মন ভালো থাকবে। বিলাসদ্রব্য কেনাকাটা হতে পারে। জ্ঞানস্পৃহা বৃদ্ধি পাবে। আবেগ সংযত রাখুন।

মিথুন (২১ মে-২০জুন)

ছোট ভাইবোনদের সঙ্গে সম্পর্ক ভালো থাকতে পারে। প্রয়োজনে তাদের সহযোগিতা পেতে পারেন। গলায় কোনও সমস্যা অনুভব করতে পারেন। প্রাপ্ত তথ্য ভালোভাবে যাচাই করে নিন।

কর্কট (২১ জুন-২০ জুলাই)

পড়াশোনায় আনন্দ পাবেন। প্রদত্ত প্রতিশ্রুতি রক্ষা করার চেষ্টা করুন। মূল্যবোধ বজায় রাখুন। আর্থিক দিক ভালো যেতে পারে। পাওনা টাকা আদায়ের জন্য তাগাদা দিন।

সিংহ (২১ জুলাই-২১ আগস্ট)

নিজেকে যথাযথ ভাবে প্রকাশ করার চেষ্টা করুন। সে ক্ষেত্রে সাফল্য পেতে পারেন। শরীর ভালো থাকবে। অসুস্থ পিতার শারীরিক অবস্থার উন্নতি হতে পারে। ভালো ব্যবহার দিয়ে কাজ আদায় করার চেষ্টা করুন।

কন্যা (২২ আগস্ট-২২ সেপ্টেম্বর)

দিনটি মিশ্র সম্ভাবনাময়। কোনও পূর্বকর্মের ফল ভোগ করতে পারেন। গোপন শত্রু সম্পর্কে সতর্ক থাকুন। শারীরিক অসুস্থতাকে অবহেলা করবেন না। ব্যয় কমানোর চেষ্টা করা।

তুলা (২৩ সেপ্টেম্বর-২২অক্টোবর)

ভবিষ্যতের জন্য কোনও পরিকল্পনা গ্রহণ করতে পারেন। জ্যেষ্ঠ ভাইবোনদের সঙ্গে সুসম্পর্ক বজায় রাখুন। প্রয়োজনে তাদের সহযোগিতা পেতে পারেন। উপার্জন বৃদ্ধির প্রচেষ্টা জোরদার করুন। পেশাগত যোগাযোগ চালিয়ে যান।

বৃশ্চিক (২৩ অক্টোবর-২১ নভেম্বর)

সামাজিক কাজে অংশ নিতে পারেন। সে ক্ষেত্রে সাফল্যের সম্ভাবনা আছে। সুনাম ও মর্যাদা বৃদ্ধি পেতে পারে। কর্মপরিবেশ অনুকূল থাকতে পারে। অসুস্থ পিতার প্রতি যত্ন নিন।

ধনু (২২ নভেম্বর-২০ ডিসেম্বর)

আধ্যাত্মিকতার প্রতি অনুরাগ বোধ করতে পারেন। জীবন ও জগৎ সম্পর্কে নতুন কোনও ধারণা পেতে পারেন। জ্ঞানস্পৃহা বৃদ্ধি পাবে। তীর্থ ভ্রমণে যেতে পারেন। ভাগ্যোন্নয়নের প্রচেষ্টা জোরদার করুন।

মকর (২১ ডিসেম্বর-১৯জানুয়ারি)

অতীন্দ্রিয় শাস্ত্রাদির প্রতি আগ্রহ বোধ করতে পারেন। ব্যবসায়িক দিক খুব একটা ভালো যাবে না। বিক্রয়-বাণিজ্যে লোকসান হতে পারে। ঝুঁকি নিয়ে কোনও কাজ করবেন না। সামাজিক সংকট এড়িয়ে চলুন।

কুম্ভ (২০ জানুয়ারি-১৮ ফেব্রুয়ারি)

পারস্পরিক সামাজিক সম্পর্ক বজায় রাখুন। অপরের প্রতি সদাচরণ করুন। ঘনিষ্ঠ কোনও বন্ধুর সহযোগিতা পেতে পারেন। ঘনিষ্ঠ কেউ শত্রুতা করতে পারে। ব্যবসায়িক দিক মোটামুটি ভালো থাকতে পারে।

মীন (১৯ ফেব্রুয়ারি-২০মার্চ)

শরীর ভালো না-ও থাকতে পারে। অবহেলা না করে চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ করুন। শত্রুরা ক্ষতি করার চেষ্টা করতে পারে। নিজের সীমাবদ্ধতা সম্পর্কে সতর্ক থাকুন। কর্মস্থলে ঝামেলা এড়িয়ে চলুন।

 

 

 

 

 

নিউজ ট্যাগ: আজকের রাশিফল

আরও খবর



ব্যাংকের প্রশ্ন ফাঁস আহছানউল্লাহ থেকে, গ্রেপ্তার ৫

প্রকাশিত:বুধবার ১০ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১০ নভেম্বর ২০২১ | ৭২৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সম্প্রতি পাঁচটি ব্যাংকের অফিসার ক্যাশ পদে নিয়োগ পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁসের ঘটনায় চক্রের মূলহোতা মো. মুক্তারুজ্জামান রয়েলসহ পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। রয়েল আহছানউল্লাহ ইউনির্ভাসিটি অব সাইন্স অ্যান্ড টেকনোলজিতে আইসিটি টেকনিশিয়ান হিসেবে কর্মরত। তার মাধ্যমেই বিশ্ববিদ্যায়টিতে কর্মরত অন্যদের সহায়তায় ওই পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁস হয়েছে বলে জানিয়েছেন ডিবির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার এ কে এম হাফিজ আক্তার।

আজ বুধবার বিকেলে ডিএমপির মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, বাংলাদেশ ব্যাংকের অধীনে পাঁচটি ব্যাংকের অফিসার ক্যাশ পদে ১৫১১টি শূন্য আসনে নিয়োগ পরীক্ষা হয় গত শনিবার। আহছানউল্লাহ ইউনির্ভাসিটির মাধ্যমে ব্যাংকার সিলেকশন কমিটি পরীক্ষাটি সম্পাদন করে।

হাফিজ আক্তার জানান, গোয়েন্দা তেজগাঁও বিভাগের জোনাল টিম তথ্য পায় পরীক্ষা শুরুর আগেরদিন রাতে প্রশ্ন ফাঁস হতে পারে। পরে ডিবির এক সদস্য ছদ্মবেশে পরীক্ষার্থী সেজে পরীক্ষার দিন সকালে প্রশ্ন ও উত্তরপত্র পেতে চক্রের সদস্যদের সঙ্গে যোগাযোগ করে।

চক্রের সদস্য রাইসুল ইসলাম স্বপনকে অগ্রিম টাকা দিলে পরীক্ষার্থীকে বুথে নিয়ে যান। এ সময় উত্তরপত্রসহ তাকে হাতেনাতে গ্রেপ্তার করা হয়। স্বপনের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে শনিবার সাভারের শ্রীনগর থেকে রূপালী ব্যাংকের সিনিয়র অফিসার জানে আলম মিলনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

এরপর জানে আলমের তথ্যের ভিত্তিতে রাজধানীর দক্ষিণ বাড্ডা থেকে মো. শামসুল হক শ্যামলকে গ্রেপ্তার করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদে প্রশ্নপত্র ও উত্তরপত্র ফাঁস করার কথা স্বীকার করেন শ্যামল। পরে চক্রের মূল হোতা মো. মুক্তারুজ্জামান রয়েলকে বাড্ডার আলিফনগর থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। রয়েল প্রশ্ন ফাঁসের কথা স্বীকার করেছেন বলে জানিয়েছেন ডিবির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার হাফিজ আক্তার।

আসামিদের কাছ থেকে একটি ল্যাপটপ, পাঁচটি মোবাইল, চারটি প্রশ্নপত্র, চারটি উত্তরপত্র। হোয়াটসঅ্যাপে থাকা উত্তরপত্রের ছবি, একটি প্রবেশপত্রের ফটোকপি ও নগদ ছয় লাখ টাকা জব্দ করা হয়েছে।

আসামিরা জানিয়েছেন, রাজধানীর বাড্ডা, বসুন্ধরা, উত্তরা, মোহাম্মদপুর, কল্যানপুর, রূপনগর, মিরপুর, মাতুয়াইল, শেওড়াপাড়া, শেরেবাংলানগর, পল্লবী এলাকায় বুথ  স্থাপন করা হয়। এসব বুথে পরীক্ষার পাঁচ থেকে ছয় ঘণ্টা আগে পরীক্ষার্থীদের প্রশ্ন ও উত্তরপত্র মুখস্থ করানো হয়। চক্রের সদস্যদের তত্ত্বাবধানে প্রত্যেক বুথে ২০ থেকে ৩০ জন পরীক্ষার্থী উত্তর মুখস্থ করে পরীক্ষার কেন্দ্রে যান।

আসামি মুক্তারুজ্জামান ও শ্যামল কৌশলে তিনবার বিভিন্ন নিয়োগ পরীক্ষার প্রশ্ন ও উত্তর ফাঁস করেছে। তারা পরীক্ষার পাঁচ থেকে ছয় ঘণ্টা আগে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রায় দুই হাজার পরীক্ষার্থীদের কাছে উত্তরপত্র পৌঁছে দেন। এজন্য নিয়োগ পাওয়ার আগ পর্যন্ত বিভিন্ন ধাপে পাঁচ থেকে ১৫ লাখ টাকা পর্যন্ত আদায় করেন তারা। আসামিদের বিরুদ্ধে বাড্ডা থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।


আরও খবর
মাদকবিরোধী অভিযানে আটক ৪৬

সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১




৬ কর্মচারীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিয়ে গেছে সিআইডি

প্রকাশিত:রবিবার ৩১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ৩১ অক্টোবর ২০২১ | ৪৮০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্যশিক্ষা বিভাগের ১৭টি ফাইল গায়েব হয়ে যাওয়ার ঘটনায় বিভাগটির তৃতীয় এবং চতুর্থ শ্রেণির ছয়জনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিয়ে গেছে সিআইডি। আজ (৩১ অক্টোবর) রবিবার বেলা ১২টার দিকে সচিবালয় থেকে তাদের নিয়ে যাওয়া হয়।

এই ছয়জনের মধ্যে ক্রয় ও সংগ্রহ শাখা-২-এর সাঁট মুদ্রাক্ষরিক ও কম্পিউটার অপারেটর মো. জোসেফ সরদার ও আয়েশা সিদ্দিকা রয়েছেন। ফাইলগুলো এই দুই কর্মীর কেবিনেটে ছিল এবং এই কেবিনেটের চাবিও থাকে তাদের দুজনের কাছেই বলে জানিয়েছে মন্ত্রণালয়ের সূত্র। এই দুটি চাবি দিয়েই কেবিনেট খোলা হয় বলে জানায় সূত্র।

এদিকে এ ঘটনায় সচিবালয়ে ছায়াতদন্ত শুরু করেছে সিআইডির ক্রাইম সিনের সদস্যরা। তদন্তের জন্য সচিবালয়ে এসেছিলেন সিআইডির বিশেষ সুপার মো. কামরুজ্জামান।

তিনি জানান, যেহেতু একটা জিডি হয়েছে। সেটার বিষয়ে ছায়া তদন্তের জন্য খোঁজ খবর নিতে আমরা এসেছি। কিছু তথ্য উপাত্ত সংগ্রহ করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, ১৭টি ফাইল গায়েব হওয়ার ঘটনায় শাহবাগ থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করে মন্ত্রণালয়। ফাইলগুলো ছিল স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবারকল্যাণ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব (উন্নয়ন) শাহাদৎ হোসাইনের কক্ষের লাগোয়া কক্ষে। সেই কক্ষে বসেন ক্রয় ও সংগ্রহ শাখা-২-এর সাঁট মুদ্রাক্ষরিক ও কম্পিউটার অপারেটর মো. জোসেফ সরদার ও আয়েশা সিদ্দিকা।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের জিডিতে বলা হয়েছে, গত ২৭ অক্টোবর অফিস করে নথিগুলো ফাইল কেবিনেটে রাখা হয়। পরদিন দুপুর ১২টায় কাজ করতে গিয়ে দেখা যায় ফাইলগুলো কেবিনেটের মধ্যে নেই। যে নথিগুলো গায়েব হয়েছে তার মধ্যে রয়েছে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ, রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজসহ অন্যান্য মেডিক্যাল কলেজের কেনাকাটা সংক্রান্ত একাধিক নথি, ইলেকট্রনিক ডেটা ট্র্যাকিংসহ জনসংখ্যাভিত্তিক জরায়ুমুখ ও স্তন ক্যানসার স্ক্রিনিং কর্মসূচি, নিপোর্ট অধিদফতরের কেনাকাটা, ট্রেনিং স্কুলের যানবাহন বরাদ্দ ও ক্রয়সংক্রান্ত নথি। আর এগুলোর বেশিরভাগই বিভিন্ন মেডিক্যাল কলেজ ও বিভাগের কেনাকাটার সঙ্গে সম্পর্কিত।

সেইসঙ্গে নার্সিং ও মিডওয়াইফারি অধিদফতর ও স্বাস্থ্যশিক্ষা অধিদফতরের বিভিন্ন প্রকল্পের নথি রয়েছে।

এ ঘটনায় তিন সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটিকে আগামী পাঁচ কার্যদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (উন্নয়ন) মো. শাহাদাৎ হোসাইন।


আরও খবর



দৈনিক আজকের দর্পণ চট্রগ্রাম ব্যুরো অফিস শুভ উদ্বোধন

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ নভেম্বর ২০২১ | ৯২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
জেনারেল ম্যানেজার রফিকুল ইসলাম বলেন, মৎস ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ.ম.রেজাউল করিম এমপি মহোদয়ের প্রতিষ্ঠিত পত্রিকা হলো আজকের দর্পণ

জাহেদুল ইসলাম আরিফ, রাঙ্গুনিয়া

চট্টগ্রামে নতুন আঙ্গিকে ও বর্ধিত কলেবরে শুভ উদ্বোধন হলো সত্যের খোঁজে প্রতিদিন জাতীয় দৈনিক আজকেত দর্পণের চট্রগ্রাম ব্যুরো অফিস। বৃহস্পতিবার (১৮ নভেম্বর) সকাল ১১ টায় চট্রগ্রাম জেলা শিল্পকলা একাডেমি অডিটোরিয়াম হল রুমে এক আলোচনা সভা ও সংবর্ধনার মধ্যদিয়ে ব্যুরো অফিসের শুভ উদ্বেধন ঘোষণা করা হয়।

অনুষ্ঠানে জাতীয় দৈনিক আজকের দর্পণের বিজনেস ডেভেলপমেন্টের জেনারেল ম্যানেজার মোহাম্মদ রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে -আজকের দর্পণের চট্রগ্রাম ব্যুরো প্রধান নুরউদ্দীন খান সাগরের সঞ্চালনায় উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্রগ্রাম সাউদার্ন ইউনিভার্সিটির প্রো-ভাইস চ্যান্সেলর অধ্যাপক এম মহিউদ্দিন চৌধুরী, প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্রগ্রাম জেলা পুলিশের অতিরিক্ত ডিআইজি মুহাম্মদ মুসলিম,বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্রগ্রাম মহানগর ১৩ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের যুগ্ন-সাধারন সম্পাদক মোঃ আবুল হাসেম শাহ।

সংবর্ধিত অতিথিবৃন্দের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বোয়ালখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি আলহাজ্ব মোহাম্মদ মনছুর আলম পাপপি, মিরসরাই মায়ানী ইউনিয়ন পরিষদের ১নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মোহাম্মদ ইয়াছিন উল্লাহ, চট্রগ্রাম আকবরশাহ এর উদ্যোক্তা ও  ব্যাবসায়ী নুর মোহাম্মদ সহ চট্রগ্রাম জেলার সিনিয়র সাংবাদিক ও উপজেলার আজকের দর্পনে কর্মরত সাংবাদিকবৃন্দ।

অনুষ্ঠানে উদ্বোধক তার বক্তব্যে বলেন,একটি পত্রিকা হচ্ছে সমাজের দর্পণ। একমাত্র গণমাধ্যমই পারে সরকারের সহযোগী হয়ে উন্নয়নের সহযাত্রী হতে।বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন এবং ইতিবাচক সমালোচনার মাধ্যমে গণমাধ্যম সরকারের ভুল ত্রুটি চিহ্নিত করে,সংশোধনের সুযোগ করে দিতে পারে। আশা করি দৈনিক আজকের দর্পণ সরকারের উন্নয়নের সহযাত্রী হয়ে কাজ করবে এবং পত্রিকাটি হবে গণমানুষের কণ্ঠস্বর।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে অতিঃডিআইজি মুহাম্মদ মুসলিম বলেন,সাহসী ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদের মাধ্যমে এগিয়ে যাবে আজকের দর্পণ,আশাকরি "সত্যের খোঁজে প্রতিদিন" যেমন স্লোগান তেমনি ভাবে সত্যের পক্ষে থেকে বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশিত হবে।

সভাপতি বক্তব্যে জেনারেল ম্যানেজার রফিকুল ইসলাম বলেন, মৎস প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ.ম.রেজাউল করিম এমপি মহোদয়ের প্রতিষ্ঠিত পত্রিকা হলো আজকের দর্পণ। আর আমাদের স্লোগানের মধ্যদিয়ে সারাদেশে সঠিক ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশের মাধ্যমে আজকের দর্পণ সুনাম কুড়িয়েছে। সেহেতু আজকের দর্পণে কর্মরত জেলা ও উপজেলায় সকল সাংবাদিকদের প্রতি আহবান থাকবে যেনো সত্যের পক্ষে থেকে সকল সংবাদ প্রেরণ করা হয়। যাতে কোন অন্যায় অনিয়ম সমাজে মাথাচাড়া দিয়ে উঠতে না পারে।এবং সকল সাংবাদিকদের জন্য রইল শুভ কামনা। এ সময় প্রতিনিধিদের মধ্যে বক্তব্য দেন,নিজস্ব প্রতিবেদক নওজুম খানম প্রিয়তা,মিরসরাই প্রেস ক্লাবের ক্রীড়া সম্পাদক ও উপজেলা প্রতিনিধি ফিরুজ মাহমুদ,রাঙ্গুনিয়া উপজেলা প্রতিনিধি জাহেদুল ইসলাম আরিফ,সীতাকুণ্ড প্রতিনিধি রফিকুল ইসলাম চাকলাদার,আবদুর রহমান সবুজ,শিমুল আশ্চার্য,তাজ মোহাম্মদ রোকন প্রমুখ।


আরও খবর



পৌর মেয়র আব্বাসকে আ.লীগ থেকে বহিষ্কার

প্রকাশিত:বুধবার ২৪ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ২৪ নভেম্বর ২০২১ | ৭১৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরাল নির্মাণ নিয়ে কটূক্তি ও বিতর্কিত বক্তব্য দেয়ায় কাটাখালি পৌরসভার মেয়র এবং পৌর আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক আব্বাস আলীকে দলীয় পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

বুধবার (২৪ নভেম্বর) বিকেলে দলীয় কার্যালয়ে পবা উপজেলা আওয়ামী লীগের জরুরি বৈঠকে আব্বাসকে পৌর আওয়ামী লীগের আহ্বায়কের পদ থেকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

পবা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাজদার রহমান সরকার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা ইয়াসিন আলীর সভাপতিত্বে জরুরি বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। সভায় আব্বাস আলীকে দলীয় পদ থেকে অব্যাহতি দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়। একইসঙ্গে কেন দলীয় সদস্য পদ থেকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করা হবে না জানতে চেয়ে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়েছে। আগামী তিন দিনের মধ্যে এ নোটিশের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

তিনি আরও জানান, কারণ দর্শানো নোটিশের জবাব পাওয়ার পর আব্বাসের ব্যাপারে শক্ত পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। তাকে দল থেকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কারের জন্য জেলা কমিটিতে সুপারিশ পাঠানো হবে।

প্রসঙ্গত, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরাল নির্মাণকে কেন্দ্র করে কটূক্তি এবং সেটি নির্মাণে প্রতিহতের ঘোষণা দিয়ে বক্তব্য দেন নৌকা প্রতীকে দুই বারের নির্বাচিত মেয়র আব্বাস আলী। এরপর তার ফাঁস হওয়া অডিও ঘুরছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। সোমবার রাত থেকে অডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে।

ইসলামের দৃষ্টিতে পাপ সে জন্য রাজশাহী সিটি গেটে বঙ্গবন্ধুর মুর‌্যাল না বসানোর নির্দেশ দেন এই মেয়র; যা জীবন দিয়ে হলেও প্রতিহত করার ঘোষণাও দেন তিনি। তার এমন বক্তব্যে রাজশাহীজুড়ে তোলপাড় শুরু হয়েছে। যদিও পুরো ঘটনাটি অস্বীকার করেছেন মেয়র আব্বাস।

তবে এ ঘটনায় মেয়র আব্বাসের বিরুদ্ধে রাজশাহী মহানগরীর পৃথক তিন থানায় তিনটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। তাকে দল থেকে বহিষ্কার এবং মেয়র পদ থেকে অপসারণের দাবিতে সোচ্চার হয়ে উঠেছে বিভিন্ন সামাজিক ও রাজনৈতিক সংগঠন।


আরও খবর