আজঃ রবিবার ২৪ অক্টোবর ২০২১
শিরোনাম

বাংলাদেশ থেকে কর্মী নিতে সার্বিয়াকে প্রস্তাব

প্রকাশিত:বুধবার ১৩ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১৩ অক্টোবর ২০২১ | ৩৪৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বাংলাদেশ থেকে জনশক্তি নেওয়ার জন্য সার্বিয়াকে প্রস্তাব দিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। সার্বিয়ার প্রেসিডেন্ট আলেকজান্ডার ভুসিকের সঙ্গে এক বৈঠকে বাংলাদেশ থেকে বিভিন্ন খাতে দক্ষ-আধা দক্ষ কর্মী নেওয়ার এই অনুরোধ করেন তিনি।

আজ বুধবার (১৩ অক্টোবর) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায়।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, বৈঠকে সার্বিয়ার প্রেসিডেন্ট করোনা মহামারির চ্যালেঞ্জ সত্ত্বেও বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশের উন্নয়ন যাত্রার ভূয়সী প্রশংসা করেন।

বৈঠকে ড. মোমেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং সাবেক যুগোস্লাভিয়ার প্রেসিডেন্ট জোসেপ ব্রোজ টিটোর মধ্যে ব্যক্তিগত বন্ধুত্বের কথা উল্লেখ করেন। বাংলাদেশ বর্তমানে শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী এবং বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন করছে জানতে পেরে সার্বিয়ার প্রেসিডেন্ট উচ্ছ্বসিত হন।

সার্বিয়ার চলমান এবং উচ্চাভিলাষী উন্নয়ন কর্মসূচির জন্য বিশাল মানবসম্পদের প্রয়োজন বলে পর্যবেক্ষণ করে ড. মোমেন বাংলাদেশ থেকে আইটি পেশাজীবী, ইলেকট্রিশিয়ান, প্লাম্বার প্রভৃতি খাতে দক্ষ ও আধা-দক্ষ কর্মী নেওয়ার প্রস্তাব দেন। সার্বিয়ান প্রেসিডেন্ট তার প্রস্তাবকে উষ্ণভাবে স্বাগত জানান। বাংলাদেশ থেকে শ্রম ও জনশক্তি নেওয়ার ক্ষেত্রে সহযোগিতার জন্য একটি প্রাতিষ্ঠানিক প্রক্রিয়া তৈরির ওপর জোর দেন তিনি।

বৈঠকে রোহিঙ্গা সংকট তুলে ধরে ড. মোমেন বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের স্বেচ্ছায়, নিরাপদ ও টেকসই প্রত্যাবাসনের জন্য মিয়ানমার জান্তার ওপর চাপ সৃষ্টি করতে সার্বিয়ার মতো বন্ধুত্বপূর্ণ দেশের সমর্থন চান। সার্বিয়ার প্রেসিডেন্ট আলেকজান্ডার ভুসিক এ বিষয়ে বাংলাদেশের উদারতার প্রশংসা করেন।

বৈঠকে ড. মোমেন সার্বিয়ান প্রেসিডেন্টকে বাংলাদেশের প্রেসিডেন্টের পক্ষ থেকে বাংলাদেশ সফরের আমন্ত্রণ জানান, যা তিনি গ্রহণ করেন। তিনি বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট ও প্রধানমন্ত্রীকেও সার্বিয়া সফরের আমন্ত্রণ জানান।

উল্লেখ্য, পররাষ্ট্রমন্ত্রী বেলগ্রেডে জোট নিরপেক্ষ আন্দোলন-ন্যামের ৬০তম বার্ষিকী উপলক্ষে এক অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছেন। অনুষ্ঠানের ফাঁকে সার্বিয়ার প্রেসিডেন্টের সঙ্গে বৈঠক করেন তিনি।


আরও খবর
মুনিয়া-শারুন আলাপ কী প্রমাণ করে?

শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১




বিশ্ব শিক্ষক দিবস আজ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৫ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৫ অক্টোবর ২০২১ | ৬৬০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
১৯৯৪ সালে ইউনেস্কোর ২৬তম অধিবেশনে গৃহীত সিদ্ধান্তের ভিত্তিতে ইউনেস্কো মহাপরিচালক ড. ফ্রেডারিক এম মেয়রের ঘোষণায় ৫ অক্টোবর বিশ্বব্যাপী শিক্ষক দিবস পালনের সূচনা হয়

আজ বিশ্ব শিক্ষক দিবস। এটি আন্তর্জাতিক শিক্ষক দিবস নামেও পরিচিত। ১৯৯৫ সাল থেকে প্রতি বছর ৫ অক্টোবর বিশ্বব্যাপী পালিত হয়ে থাকে দিবসটি।

মূলত এই দিনে বিশেষভাবে শিক্ষকদের অবদান স্মরণ করা হয়। বিশ্ব শিক্ষক দিবসের লক্ষ্য বিশ্বের শিক্ষাবিদদের প্রশংসা করা, মূল্যায়ন করা, উন্নত করা, শিক্ষক ও শিক্ষাদান সম্পর্কিত বিষয়গুলো বিবেচনার সুযোগ দেওয়া।

ইউনেস্কোর মতে, বিশ্ব শিক্ষক দিবস শিক্ষা ও উন্নয়নের ক্ষেত্রে শিক্ষকদের অসামান্য অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ পালন করা হয়।

বিশ্বের প্রায় ১০০টি দেশে দিবসটি পালিত হয়ে থাকে। এ দিবস পালনে এডুকেশন ইন্টারন্যাশনাল (ইআই) ও তার সহযোগী ৪০১টি সদস্য সংগঠন মূল ভূমিকা রাখে।  ইআই প্রতি বছরই একটি প্রতিপাদ্য বিষয় নির্ধারণ করে থাকে যা জনসচেতনতা বৃদ্ধির সাথে সাথে শিক্ষকতা পেশার অবদানকেও স্মরণ করিয়ে দেয়। বিশ্ব শিক্ষক দিবসের এ বছরের প্রতিপাদ্য হলো ‌‌শিক্ষার পুনরুদ্ধারের কেন্দ্রবিন্দুতে শিক্ষক।

জানা যায়, ১৯৬৬ সালের ৫ অক্টোবর ফ্রান্সের প্যারিসে শিক্ষকদের অবস্থা নিয়ে একটি সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছিল। সেখানেই শিক্ষকদের কথা চিন্তা করে ইউনেস্কো এবং আন্তর্জাতিক শ্রম ও সংগঠন (আইএলও) কিছু সুপারিশমালায় স্বাক্ষর করে। এই পরামর্শ বা সুপারিশমালায় শিক্ষা কর্ম নীতি, শিক্ষকদের নিয়োগ, প্রাথমিক প্রশিক্ষণ, কর্মসংস্থান, এবং কাজের অবস্থার সাথে সম্পর্কিত মানদণ্ডের রূপরেখার উল্লেখ ছিলো।

এরপর ১৯৯৪ সালে ইউনেস্কোর ২৬তম অধিবেশনে গৃহীত সিদ্ধান্তের ভিত্তিতে ইউনেস্কো মহাপরিচালক ড. ফ্রেডারিক এম মেয়রের ঘোষণায় ৫ অক্টোবর বিশ্বব্যাপী শিক্ষক দিবস পালনের সূচনা হয়। বিশ্ব শিক্ষক দিবস উদযাপনের জন্য, ইউনেস্কো এবং এডুকেশন ইন্টারন্যাশনাল (ইআই) প্রতিবছর একটি প্রচারাভিযান চালায় যাতে বিশ্বকে শিক্ষকদের সম্বন্ধে আরও ভালোভাবে বোঝানো যায় এবং ছাত্র ও সমাজের উন্নয়নে তাঁরা যে ভূমিকা পালন করে তা মানুষের সামনে তুলে ধরা যায়।

অবশ্য পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে পৃথক পৃথক তারিখেও এই দিবসটি পালিত হয়। যার মধ্যে আর্জেন্টিনায় ১১ সেপ্টেম্বর, অস্ট্রেলিয়ায় ৩১ অক্টোবর, ভুটানে ২ মে, ব্রাজিলে ১৫ অক্টোবর, চীনে ১০ সেপ্টেম্বর, কলম্বিয়ায় ১৫ মে, হংকং ১০ সেপ্টেম্বর, ইন্দোনেশিয়ায় ২৫ নভেম্বর, ইরানে ২ মে, ইরাকে ১ মার্চ, মালয়েশিয়ায় ১৬ মে, নেপালে জুলাই মাসের মাঝামাঝি, নিউজিল্যান্ডে ২৯ অক্টোবর, সিঙ্গাপুরে ১ সেপ্টেম্বর, দক্ষিণ কোরিয়ায় ১৫ মে, স্পেনে ২৭ নভেম্বর, থাইল্যান্ডে ২১ জানুয়ারি, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ৭ মার্চ ও ভিয়েতনামে ২০ নভেম্বর শিক্ষক দিবস পালন করা হয়।

এছাড়াও বাংলাদেশ, ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলংকা, আর্মেনিয়া, আজারবাইজান, ক্যামেরুন, কানাডা, ক্রোয়েশিয়া, এস্টোনিয়া, জর্জিয়া, জার্মানি, কুয়েত, মালদ্বীপ, মরিশাস, মালডোভা, মঙ্গোলিয়া, মিয়ানমার, নেদারল্যান্ড, নাইজেরিয়া, ফিলিপাইন, পর্তুগাল, কাতার, রোমানিয়া, রাশিয়া ও সৌদি আরবে ৫ অক্টোবর দিবসটি পালন করা হয়।

বিশ্ব শিক্ষক দিবস উপলক্ষে স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদের (স্বাশিপ) উদ্যোগে আজ রমনায় ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনের সেমিনার কক্ষে বঙ্গবন্ধুর দৃষ্টিতে শিক্ষকদের মর্যাদা’ শীর্ষক সেমিনারের আয়োজন করা হয়েছে। সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেবেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ। এতে লিখিত প্রবন্ধ উপস্থান করবেন স্বাশিপ সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ মো. শাহজাহান আলম সাজু।

বিশ্ব শিক্ষক দিবস ২০২১ জাতীয় উদযাপন কমিটি সন্ধ্যায় ভার্চুয়াল আলোচনা সভা আয়োজন করেছে। ইউনেস্কো, ইউনিসেফ, আইএলও, ইউএনডিপি, ইআইসহ দেশের বিভিন্ন শিক্ষক সংগঠন মিলে এ কর্মসূচি পালন করছে। এতে জাতীয়, আন্তর্জাতিক সংগঠন ও শিক্ষক প্রতিনিধিরা বক্তৃতা করবেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেবেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান। এতে মূল বক্তব্য পাঠ করবেন বিশ্ব শিক্ষক দিবস উদযাপন কমিটির সভাপতি ও সমন্বয়ক অধ্যাপক কাজী ফারুক আহমেদ। দিবসটি উপলক্ষে বাংলাদেশ বেসরকারি শিক্ষক-কর্মচারী ফোরাম বঙ্গবন্ধুর শিক্ষা দর্শন ও মুজিববর্ষে এমপিওভুক্ত শিক্ষাব্যবস্থা জাতীয়করণ’ শীর্ষক আলোচনা অনুষ্ঠান এবং র‌্যালির আয়োজন করেছে।


আরও খবর



আফগানিস্তানের হেলমান্দে সেলুনে দাড়ি কাটায় তালেবানের নিষেধাজ্ঞা

প্রকাশিত:সোমবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৩৭৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আফগানিস্তানের হেলমান্দ প্রদেশে সেলুনে দাড়ি কাটায় নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে। ইসলামি আইনের লঙ্ঘন হয় উল্লেখ করে এ নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে তালেবানের ধর্মীয় পুলিশ। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে এমনটি জানানো হয়েছে।

দক্ষিণ হেলমান্দের সেলুনগুলোতে নোটিস দেওয়া হয়েছে। তাতে চুল-দাড়ি কাটার ক্ষেত্রে শরিয়া আইন মেনে চলার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। বলা হয়েছে, সেলুনওয়ালাদের কেউ এই নিষেধাজ্ঞা অমান্য করলে তাকে শাস্তি পেতে হবে।

এ ছাড়া রাজধানী কাবুলের বেশ কিছু সেলুনেও এমন নোটিস দেওয়া হয়েছে বলে জানা গেছে। কাবুলের একজন সেলুনকর্মী বিবিসিকে বলেন, যোদ্ধারা মাঝে মধ্যেই আসছেন এবং দাড়ি কাটতে নিষেধ করছেন।

কাবুলের সবচেয়ে বড় সেলুন পরিচালনাকারী বিবিসিকে বলেছেন, সরকারি কর্মকর্তা পরিচয়ে একজন ফোন করেছিলেন। তিনি আমাকে আমেরিকান স্টাইলে চুল কাটতে নিষেধ করেছেন এবং দাড়ি কাটা যাবে না বলে নির্দেশনা দিয়েছেন।

গত ১৫ আগস্ট কাবুল দখলের মধ্য দিয়ে আফগানিস্তানের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর থেকে তালেবান বলে আসছে তারা আগের মতো কট্টর নীতিতে দেশ চালাবে না। এদিকে, শনিবার হেরাত প্রদেশে চার জন অপহরণকারীকে হত্যার পর তাদের মরদেহ প্রকাশে রাস্তায় ঝুলিয়ে রাখে তালেবান কর্তৃপক্ষ।


আরও খবর



রূপপুর বিদ্যুৎকেন্দ্রের চুল্লি উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ১০ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১০ অক্টোবর ২০২১ | ৪৩৩৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পাবনার রূপপুরে নির্মাণাধীন পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের প্রথম নিউক্লিয়ার রি-অ্যাক্টর ভেসেল বা পারমাণবিক চুল্লি উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রোববার বেলা পৌনে ১২টার দিকে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এই উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অংশ নেন তিনি। এই চুল্লি পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ যন্ত্রাংশ। যেখানে মূল জ্বালানি ইউরেনিয়াম থাকবে। এটিকে বিদ্যুৎকেন্দ্রের হৃদপিণ্ডও বলা হয়ে থাকে।

চুল্লি স্থাপনের বিষয়টিকে একটি মাইলফলক হিসেবে দেখছেন সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা। এই পারমাণবিক জ্বালানি পুড়িয়ে মূল শক্তি উৎপাদন হবে এবং সেখান থেকে এক হাজার ২০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন সম্ভব হবে। এই ইউনিটের রিঅ্যাক্টর গত বছর অক্টোবরে রাশিয়া থেকে দেশে এসে পৌঁছায় এবং নভেস্বরে সেটি রূপপুরে নেওয়া হয়। এ বছর আগস্টে দ্বিতীয় ইউনিটের রিঅ্যাক্টর এসেছে।

এই ভারী যন্ত্রগুলো রাশিয়ার ভলগা নদী থেকে প্রায় ১৪ হাজার কিলোমিটার সামুদ্রিক পথ পাড়ি দিয়ে বাংলাদেশের মোংলা বন্দর দিয়ে রূপপুরের কাছে পদ্মায় এসে পৌঁছায়। এ রিয়্যাক্টর ভেসেলের ওজন ৩৩৩ দশমিক ৬ টন। যা বানাতে দুই বছরের বেশি সময় লাগে।

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় জানায়, মোট দুই হাজার ৪০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতার প্রথম ইউনিটটির নির্মাণকাজ ২০২৩ সালের মধ্যে শেষ হবে। এই ইউনিট প্রতিদিন এক হাজার ২০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করতে পারবে এবং আসছে ২৪ সালের মধ্যে এটি বাণিজ্যিক উৎপাদনে যাবে। সমান সক্ষমতার দ্বিতীয় ইউনিটটি  ২৪ সালের শেষ দিকে বাণিজ্যিক উৎপাদনে যাবে বলে আশা করা হচ্ছে। প্রকল্প সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা জানান,  চুল্লিা বসানোর আগে অন্যান্য অবকাঠামোগত কাজগুলো শেষ করা হয়েছে। এখন বাকি যা কাজ রয়েছে তার প্রায় পুরোটাই যান্ত্রিক ও কারিগরি।

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ প্রকল্পের খরচ নির্ধারণ করা হয়েছে ১ লাখ ১৩ হাজার কোটি টাকারও বেশি। যার বেশির ভাগ আসছে রাশিয়ান সরকারের ঋণ সহায়তা থেকে। স্বাধীনতার পর গত ৫০ বছরের মধ্যে রূপপুর প্রকল্পই দেশের সবচেয়ে বড় এবং অর্থনৈতিক দিক থেকে সর্বাধিক ব্যয়বহুল প্রকল্প।

পরিকল্পনা অনুযায়ী ২০২৩ সালে প্রথম ইউনিট থেকে ১২শ মেগাওয়াট এবং ২০২৪ সালে দ্বিতীয় ইউনিট থেকেও ১২শ মেগাওয়াট অর্থাৎ মোট ২ হাজার ৪শ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করা হবে।




আরও খবর
মুনিয়া-শারুন আলাপ কী প্রমাণ করে?

শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১




বিশ্বে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আরও ৭ হাজারের বেশি মৃত্যু

প্রকাশিত:শুক্রবার ০১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০১ অক্টোবর ২০২১ | ৫৩৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বিশ্বে গত ২৪ ঘণ্টার ব্যবধানে করোনাভাইরাসের আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েছে, তবে কমেছে মৃত্যু। গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৭ হাজার ৭১৯ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় মৃত্যুর সংখ্যা কমেছে ৯৪৫ জন। এ নিয়ে বিশ্বে মোট মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪৭ লাখ ৯৭ হাজার ২৩৭ জন।

একই সময়ের মধ্যে ভাইরাসটিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৪ লাখ ৮৪ হাজার ৯২৯ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় নতুন শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়েছে সাড়ে ৫ হাজারের বেশি। এ নিয়ে বিশ্বে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৩ কোটি ৪৫ লাখ ৫৩ হাজার ৮৯৯ জনে।

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা আন্তর্জাতিক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটার থেকে শুক্রবার (০১ অক্টোবর) সকালে এই তথ্য জানা গেছে।

ওয়ার্ল্ডওমিটারের সবশেষ তথ্য অনুযায়ী, করোনা থেকে মোট সুস্থ হয়েছেন ২১ কোটি ১৩ লাখ ৫১ হাজার ৩৭০ জন।

ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্য অনুযায়ী, করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশ যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা সংক্রমিত হয়েছেন ৪ কোটি ৪৩ লাখ ১৪ হাজার ৪২৪ জন। মারা গেছেন ৭ লাখ ১৬ হাজার ৮১৬ জন।

করোনায় আক্রান্তের তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে প্রতিবেশী দেশ ভারত। দেশটিতে এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩ কোটি ৩৭ লাখ ৬৫ হাজার ৪৮৮ জনে। মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ৪৮ হাজার ৩৭২ জনের।

লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিল করোনায় আক্রান্তের দিক থেকে তৃতীয় ও মৃত্যুর সংখ্যায় তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে। দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগী ২ কোটি ১৪ লাখ ২৭ হাজার ৭৩ জন। সবমিলিয়ে মৃত্যু হয়েছে ৫ লাখ ৯৬ হাজার ৮০০ জনের।

নিউজ ট্যাগ: করোনাভাইরাস

আরও খবর



জামিন পেলেন ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ ৪ জন

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১২ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১২ অক্টোবর ২০২১ | ৪৮০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

শান্তিতে নোবেলজয়ী ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ চারজন জামিন পেয়েছেন। শ্রম আইন লঙ্ঘনের মামলায় তারা আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করলে আদালত জামিন আবেদন মঞ্জুর করেন।

আজ মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) ঢাকার ৩ নম্বর শ্রম আদালতে তারা আত্মসমর্পণ করে জামিনের জন্য আবেদন জানান। শুনানি শেষে আদালত ১০ হাজার টাকায় মুচলেকায় ড. ইউনূসসহ চারজনের জামিন আবেদন মঞ্জুর করেন। এর আগে ঢাকার কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান অধিদপ্তর ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ চারজনের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা দায়ের করেন।

গত ৯ সেপ্টেম্বর ঢাকার শ্রম আদালতে কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান অধিদপ্তরের শ্রম পরিদর্শক এস এম আরিফুজ্জামান বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান অধিদপ্তর ড. ইউনূসের গ্রামীণ টেলিকম পরিদর্শনে গেলে প্রতিষ্ঠানটির শ্রম আইনের কিছু লঙ্ঘন নজরে আসে। এসবের মধ্যে রয়েছে, ১০১ জন শ্রমিক-কর্মচারীকে স্থায়ী করার কথা থাকার পরও তাদের স্থায়ী করা হয়নি, শ্রমিকদের অংশগ্রহণের তহবিল ও কল্যাণ তহবিল গঠন করা হয়নি। এ ছাড়া কোম্পানির লভ্যাংশের ৫ শতাংশ শ্রমিকদের দেওয়ার কথা থাকলেও তা দেওয়া হয়নি।

ওইসব অভিযোগের ভিত্তিতে ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ চারজনের বিরুদ্ধে কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান অধিদপ্তর বাদী হয়ে ফৌজদারি আইনে মামলা দায়ের করে।


আরও খবর
ইকবালসহ ৪ আসামির রিমান্ড মঞ্জুর

শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১