আজঃ শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২
শিরোনাম

বাংলাদেশসহ ১৫৩ দেশের ট্রানজিট বাতিল করলো হংকং

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৪ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ জানুয়ারী ২০২২ | ৩৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় বিশ্বের ১৫৩টি দেশ ও অঞ্চলের সঙ্গে ট্রানজিট ফ্লাইট বাতিল করেছে হংকং। শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) এক বিবৃতিতে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে হংকং বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ।

এ তালিকায় দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশ, ভারত, পাকিস্তান, মালদ্বীপ, নেপাল ও শ্রীলঙ্কার নাম রয়েছে।

করোনা সংক্রমণ পরিস্থিতি বিবেচনায় বিভিন্ন দেশ ও অঞ্চলকে কয়েকটি ক্যাটাগরিতে ভাগ করেছে হংকং। এতে অতিঝুঁকিপূর্ণ গ্রুপ এ-তে স্থান পাওয়া যুক্তরাষ্ট্র, ব্রিটেন, অস্ট্রেলিয়া, কানাডা, ফ্রান্স, ভারত, পাকিস্তান ও ফিলিপাইনের ভ্রমণকারীদের প্রবেশ আগেই নিষিদ্ধ করা হয়েছিল।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, সবশেষ ২১ দিন গ্রুপ এ-তে থাকা ব্যক্তির জন্য হংকং আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর দিয়ে ট্রানজিট স্থগিত করা হয়েছে। এ নির্দেশনা আগামী ১৬ জানুয়ারি থেকে ১৫ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত কার্যকর থাকবে।

ওমিক্রনের প্রার্দুভাব ঠেকাতে এমন কঠোর ব্যবস্থা নিতে হয়েছে বলে উল্লেখ করেছে হংকং বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ। এছাড়াও আসন্ন বেইজিং অলিম্পিকের অতিথিদের জন্যেও এই বিধিনিষেধ সমানভাবে কার্যকর হবে বলে জানিয়েছে তারা।


আরও খবর
হাসপাতালে ভর্তি মাহাথির মোহাম্মদ

শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২




ফাঁদে ফেলে অর্থ আদায়: এবার পুলিশ পরিদর্শকের স্ত্রী গ্রেফতার

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৪ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৪ জানুয়ারী ২০২২ | ৭৯০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রংপুরে ফাঁদে ফেলে সাধারণ মানুষদের জিম্মি করে টাকা আদায়ের ঘটনায় এবার এক পুলিশ পরিদর্শকের স্ত্রীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। মঙ্গলবার (৪ জানুয়ারি) বিকেলে রংপুর নগরীর ঠিকাদার পাড়া বিকন মোড় এলাকার একটি বাসা থেকে তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। গ্রেফতার ওই নারীর নাম কানিজ ফাতিমা আনিসা (৩৬)। তার স্বামীর নাম হাবিবুর রহমান। তিনি পুলিশ সুপার কার্যালয়ে পরিদর্শক পদে কর্মরত।

আনিসাকে গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন রংপুর মহানগর পুলিশের কোতোয়ালি থানার পরিদর্শক (তদন্ত) হোসেন আলী। তিনি বলেন, সাধারণ মানুষকে জিম্মি করে টাকা আদায় ও টর্চারসেলে নির্যাতনের অভিযোগে ২ জানুয়ারি রাতে নগরীর গ্র্যান্ড হোটেল মোড় এলাকার বাড়ি থেকে শাহারুখ করিম অনিক (৩৪) ও তার স্ত্রী আসমানী আক্তারকে (২৪) গ্রেফতার করে র‌্যাব। এ ঘটনায় থানায় তাদের বিরুদ্ধে মামলা হয়। ওই মামলায় আসামিরা আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। জবানবন্দিতে কানিজ ফাতিমা আনিসার নাম উঠে আসে।

হোসেন আলী আরও বলেন, মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে অভিযান চালিয়ে তাকে বিকন মোড় এলাকার একটি বাসা থেকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারের পর তাকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে রংপুর মহানগর পুলিশের এক কর্মকর্তা জানান, গ্রেফতার আনিসা পুলিশ সুপার কার্যালয়ে পরিদর্শক পদে কর্মরত হাবিবুর রহমানের স্ত্রী।

তবে এ বিষয়ে জানতে হাবিবুর রহমানের মোবাইল নম্বরে কল দিলে তিনি নিজেকে পুলিশ পরিদর্শক পরিচয় দেন। তবে আনিসার ব্যাপারে জানতে চাইলে ওই নারী তার স্ত্রী নন বলেই ফোন কেটে দেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে জেলা পুলিশ সুপার ফেরদৌস আলী চৌধুরীর মোবাইল ফোনে কল দিলেও তিনি রিসিভ করেননি।

এর আগে সোমবার বিকেলে রংপুর র‌্যাব-১৩ এর সহকারী পরিচালক মাহমুদ বশির আহমেদ স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বেশ কিছুদিন ধরে অনিকের স্ত্রী আসমানী রংপুর মহানগরীর বিভিন্ন ব্যক্তির সঙ্গে পরিচিত হয়ে কৌশলে তাদের আস্তানায় ডেকে নিয়ে যেতেন। এরপর অনিকসহ অজ্ঞাত চার-পাঁচজন ওইসব ব্যক্তির অশ্লীল ছবি তুলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়া এবং হত্যার ভয় দেখিয়ে চাঁদা আদায় করত। এভাবেই লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে এ চক্রটি।

এমন একটি অভিযোগের ভিত্তিতে র‌্যাব-১৩ বিষয়টি আমলে নিয়ে সত্যতা অনুসন্ধানের জন্য তাৎক্ষণিক ছায়া তদন্ত শুরু করে এবং জিম্মিকারী ব্যক্তিদের আইনের আওতায় নিয়ে আসতে গোয়েন্দা নজরদারি বাড়ায়। এরই ধারাবাহিকতায় র‌্যাবের একটি টিম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রোববার রাতে রংপুর মহানগরীর গ্র্যান্ড হোটেল মোড় এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে তাদের গ্রেফতার করে।

অভিযান চলাকালে র‌্যাব তাদের বাসার ষষ্ঠ তলায় একটি টর্চার সেলের সন্ধান পায়। এ সেল থেকে দুটি চাপাতি, ইলেকট্রিক শকের তার, মাদক সেবনের সরঞ্জামাদি, হাতুড়ি, ছুরি, স্ট্যাম্প, ভিডিও ধারণের দুটি মোবাইল ফোন এবং একটি ল্যাপটপ উদ্ধার করে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতার দম্পতি বিভিন্ন ব্যক্তিকে জিম্মি করে চাঁদা আদায় এবং নির্যাতনের কথা স্বীকার করেছেন। সংশ্লিষ্ট থানায় মামলা দিয়ে আটকদের হস্তান্তর করা হয়েছে। তাদের সহযোগীদেরও আইনের আওতায় আনতে র‌্যাবের কার্যক্রম অব্যাহত আছে।

নিউজ ট্যাগ: রংপুর

আরও খবর



দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষ, আহত ৩০

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৩ ডিসেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৩ ডিসেম্বর ২০২১ | ৫১৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ভোলা সদর উপজেলায় পঞ্চম ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের দুই সদস্য প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় আহত হয়েছেন প্রায় ৩০ জন। বুধবার (২২ ডিসেম্বর) রাত ৯টার দিকে উপজেলার ভেদুরিয়া ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের লালস্কুল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানান, বুধবার (২২ ডিসেম্বর) রাতে লালস্কুল এলাকায় টিউবওয়েল প্রতীকের সদস্য পদপ্রার্থী নুরুল ইসলামের নির্বাচনী কার্যালয়ের সামনে দিয়ে তার প্রতিদ্বন্দ্বী বৈদ্যুতিক ফ্যান প্রতীকের সিরাজ গোলদারের সমর্থকরা মিছিল নিয়ে যাচ্ছিলেন। এ সময় বিভিন্ন স্লোগান দিচ্ছিলেন। মিছিল ও স্লোগান নিয়ে নুরুলের সমর্থকদের সঙ্গে তাদের কথা-কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে দুই পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ সময় নুরুলের ২০ জন ও সিরাজের ১০ জন সমর্থক আহত হন। তাদের মধ্যে ২২ জন ভোলা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

ভোলা সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনায়েত হোসেন জানান, এ ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনেছে। সেখানে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। দুই পক্ষই ফোনে অভিযোগ জানালেও কেউ কোনো লিখিত অভিযোগ করেনি। লিখিত অভিযোগ পেলে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

নিউজ ট্যাগ: ভোলায় সংঘর্ষ

আরও খবর



নোটিশ ছাড়াই পরীক্ষা স্থগিত, সড়ক অবরোধ শিক্ষার্থীদের

প্রকাশিত:শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২ | হালনাগাদ:শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২ | ২৪৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পূর্বনোটিশ ছাড়াই চলমান পরীক্ষা হঠাৎ স্থগিত করার প্রতিবাদে রাজধানীর নীলক্ষেত মোড় অবরোধ করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) অধিভুক্ত রাজধানীর সাত সরকারি কলেজের ডিগ্রির শিক্ষার্থীরা। শনিবার (২২ জানুয়ারি) সকাল ৯টায় নীলক্ষেত মোড় অবরোধ করেন পরীক্ষা দিতে কেন্দ্রে আসা শিক্ষার্থীরা।

আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা জানান, পরীক্ষা কেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে তারা জানতে পারেন, পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে৷ আজই তাদের শেষ পরীক্ষা ছিল।

তাদের অভিযোগ, ২০১৮ সালে দ্বিতীয় বর্ষের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও তা ২০২২ সালে শেষ হচ্ছে। গত ২১ নভেম্বর পরীক্ষা শুরু হয়ে আজ শেষ হওয়ার কথা থাকলেও তা স্থগিত করা হয়েছে।

কবি নজরুল সরকারি কলেজের শিক্ষার্থী রাব্বি জমাদ্দার বলেন, আমরা পরীক্ষার প্রস্তুতি নিয়ে কেন্দ্রে আসার পর জানতে পেরেছি পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। কোনো নোটিশ দেওয়া হয়নি। এমন অসম আচরণ শুধুমাত্র সাত কলেজের প্রতিই করা হচ্ছে। আমরা এমনিতেই ভয়াবহ সেশনজটে আছি। আজ শেষ পরীক্ষা থাকলেও কেন্দ্রে এসে জানতে পারি পরীক্ষা স্থগিত৷ আমাদের সঙ্গে এমন প্রহসন কেন।

সাত কলেজের ডিগ্রির এসব শিক্ষার্থীর পরীক্ষা ইডেন কলেজ কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল।

জানতে চাইলে ঢাকা কলেজ শিক্ষক পরিষদ সম্পাদক ও সেভেন কলেজ টিচার্স অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক ড. আবদুল কুদ্দুস সিকদার বলেন, আমরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রকের সঙ্গে কথা বলেছে। তিনি বলেছেন মৌখিকভাবে পরীক্ষা বন্ধ করা হয়েছে, কোনো প্রকার নোটিশ দেওয়া হয়নি। এমন আচরণ আমরাও প্রত্যাশা করি না। দূরদূরান্ত থেকে শিক্ষার্থীরা পরীক্ষা দিতে এসেছে। তাছাড়া আজ তাদের শেষ পরীক্ষা ছিল। বিষয়টি নিয়ে সাত কলেজের সমন্বয়কের সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।


আরও খবর



আকাশে ‘অলৌকিক’ শিশুর প্রসব করালেন মুসলিম চিকিৎসক

প্রকাশিত:শনিবার ১৫ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ১৫ জানুয়ারী ২০২২ | ৪৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

গত মাসে কাতার এয়ারওয়েজের একটি ফ্লাইটে করে দোহা থেকে উগান্ডার এন্টেবে শহরে যাচ্ছিলেন কানাডিয়ান চিকিৎসক ডা. আয়েশা খাতিব। পথিমধ্যে ফ্লাইটেই উগান্ডার এক অভিভাসী নারী কর্মী অলৌকিক কন্যা সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। সেটির প্রসব করিয়ে এখন আলোচনায় কানাডিয়ান এই মুসলিম চিকিৎসক।

বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ঘটনাটি ঘটে গত ৫ ডিসেম্বর। কিন্তু টরন্টোতে করোনা রোগীদের চিকিৎসায় ব্যস্ত থাকায় সেটি সবাইকে জানাতে পারছিলেন না ডা. আয়েশা খাতিব। অবশেষে শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি পোস্ট শেয়ার করেছেন তিনি। সেখানে নিজের অভিজ্ঞতা ও উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন।

টরন্টো বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ডা. আয়েশা খাতিব দোহা থেকে উগান্ডার এন্টেবে শহরে যাচ্ছিলেন। এক ঘণ্টা পরই ইন্টারকম দিয়ে জিজ্ঞেস করা হয়, ফ্লাইটে কোনো চিকিৎসক আছে কি না? এর পরই তিনি সেখানে যান এবং অলৌকিক শিশুর প্রসব সম্পন্ন করান।

উগান্ডার ওই নারী সৌদি আরব থেকে নিজ দেশে ফিরছিলেন। মূলত সন্তান জন্মদানের উদ্দেশ্যেই তার দেশে ফেরা। কিন্তু সৃষ্টিকর্তার কি হুকুম দেখুন, ফ্লাইটেই সন্তান পৃথিবীর আলোর মুখ দেখেছে। আর নাম রাখা হয়েছে চিকিৎসকের সঙ্গে মিলিয়ে অলৌকিক আয়েশা

ডা. আয়েশা খাতিব বিবিসিকে বলেন, ইন্টারকম থেকে ভয়েস শোনার পর আমি গিয়ে দেখি রোগীকে ঘিরে জটলা বেঁধে আছে। তখন এটিকে হার্ট অ্যাটাকের মতো জটিল পরিস্থিতি মনে হচ্ছিল। কিন্তু আরও কাছে গিয়ে দেখি তার সন্তান পৃথিবীতে আসার জন্য চেষ্টা করে যাচ্ছে।

তখন আরও দুই যাত্রীর সহায়তায় প্রসবের কাজ সম্পন্ন করি। শিশুটি দৃঢ়ভাবে কাঁদছিল। শিশুটি স্থিতিশীল এবং মাও সুস্থ ছিল। তখন আমি অভিনন্দন জানাই এবং বলি, কন্যা সন্তান হয়েছে। এরপর পুরো ফ্লাইটে তালি ও উচ্ছ্বাস ছড়িয়ে পড়ে। সবাই ঘটনাটি দেখছিল, যোগ করেন তিনি।


আরও খবর
হাসপাতালে ভর্তি মাহাথির মোহাম্মদ

শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২




‘৮৩’ দেখে রণবীরদের ভূয়সী প্রশংসা বিরুষ্কা

প্রকাশিত:শনিবার ২৫ ডিসেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ২৫ ডিসেম্বর ২০২১ | ৫৫০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

শুক্রবারই মুক্তি পেয়েছে ভারতের ১৯৮৩ ক্রিকেট বিশ্বকাপ নিয়ে নির্মিত ছবি ৮৩। প্রথম দিনই দর্শকদের মন কেড়ে নিয়েছে এই সিনেমা। প্রেক্ষাগৃহে উপচে পড়ছে ভিড়। ঐতিহাসিক ঘটনা নিয়ে তৈরি এই সিনেমা দেখে ফেলেছেন বিরাট কোহলী এবং অনুষ্কা শর্মা। দুজনেই টুইট করে নিজেদের অনুভূতি ব্যক্ত করেছেন।

কোহলী টুইটারে লিখেছেন, ভারতীয় ক্রিকেটের ইতিহাসের অন্যতম স্মরণীয় এই ঘটনা এর থেকে ভাল ভাবে দেখানো সম্ভব ছিল না। ১৯৮৩ বিশ্বকাপের যে ঘটনা এবং আবেগ, তাকে তুলে ধরে অসাধারণ ভাবে এই সিনেমা নির্মিত হয়েছে। অভিনয়ও দুর্দান্ত। কোহলী আলাদা করে তুলে ধরেছেন কপিলের ভূমিকায় অভিনয় করা রণবীর সিংহের কথা। লিখেছেন, রণবীর তো সবাইকে ছাপিয়ে গিয়েছে। বাকিরাও অসাধারণ অভিনয় করেছে।

অনুষ্কা লিখেছেন, ৮৩ সিনেমার সঙ্গে জড়িত থাকা প্রত্যেকে ভারতের খেলাধুলোর ইতিহাসের অন্যতম সেরা এক মুহূর্ত অসাধারণ ভাবে বর্ণনা করেছেন। নতুন প্রজন্মের কাছে এই ঘটনাকে তুলে ধরার জন্য কবীর খানকে অসংখ্য ধন্যবাদ। রণবীর সিংহ, তোমায় আর আলাদা করে কী বলব? তুমি এই ছবিতে সবার সেরা।

আরও একটি টুইটে অনুষ্কা লিখেছেন, এই ছবিতে কোনও মিথ্যা জিনিস দেখানো হয়নি। রণবীর, অসাধারণ অভিনয় করেছ তুমি। প্রত্যেকের অভিনয়ই একই রকম ভাবে ভাল লেগেছে।


আরও খবর