আজঃ শনিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১
শিরোনাম

চাঁদপুরের বাস দুর্ঘটনার ভিডিও ভাইরাল

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ২০৬৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

চাঁদপুর-কুমিল্লা আঞ্চলিক মহাসড়কে বেপরোয়া গতিতে চলা যাত্রীবাহী বাস দুর্ঘটনার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওটি দুর্ঘটনাকবলিত বাসের পেছনের অন্য আরেকটি বাস থেকে ধারণ করা হয়েছে। তবে কে তা ধারণ করেছেন তার পরিচয় ঘটনার একদিন পার হলেও এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

সোমবার (৮ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে চাঁদপুরের শাহরাস্তি উপজেলার মৌতাবাড়ি এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে। এতে দুই নারী যাত্রী ঘটনাস্থলেই নিহত হন।

এদের একজন শাহরাস্তির নাওড়া গ্রামের বীভা রানী দাস এবং কুমিল্লার নিমসারের গীতা রানী দাস। এই দুজন পরস্পর আত্মীয়। এই দুর্ঘটনায় বাসের আরো বেশ কয়েকজন যাত্রী আহত হন।

পুলিশ জানিয়েছে, কুমিল্লা থেকে চাঁদপুরের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসা বোগদাদ পরিবহনের বাসটি শাহরাস্তির মৌতাবাড়ি এলাকায় পৌঁছে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়কের পাশের খাদে পড়ে যায়।

শাহরাস্তি থানার ওসি আব্দুল মান্নান জানান, খুব বেপরোয়া গতিতে চলার কারণে এমন দুর্ঘটনা ঘটে। বাসটি জব্দ করা হয়েছে। তবে চালক পালিয়ে যাওয়ায় তাকে আটক করা যায়নি।

দেশের বিশিষ্ট দারুশিল্পী সমীরণ দত্ত জানান, এই দুর্ঘটনায় তার বড়বোন নিহত হন। এর আগে আরেক দুর্ঘটনায় কয়েক বছর আগে তার বোনের স্বামীও নিহত হন।

অন্যদিকে স্থানীয়দের অভিযোগ, চাঁদপুর-কুমিল্লা আঞ্চলিক মহাসড়কে চলাচলকারী বোগদাদ পরিবহনের বাসগুলো প্রায় এমন বেপরোয়া গতিতে চলার কারণে দুর্ঘটনার শিকার হয়।



নিউজ ট্যাগ: সড়ক দুর্ঘটনা

আরও খবর
সাড়ে ৪ লাখ ইয়াবাসহ আটক ৫

শুক্রবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১

কক্সবাজারে পুলিশ পরিচয়ে ডাকাতি

বুধবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১




সিনহা হত্যা মামলায় শেষ দিনের সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু

প্রকাশিত:বুধবার ০৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ০৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৫০৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান হত্যা মামলার দ্বিতীয় দফায় চতুর্থ দিনে ষষ্ঠ সাক্ষী শহীদুল ইসলামকে দিয়ে সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়েছে।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ও কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) ফরিদুল আলম জানান, আজ বুধবার সকাল ১০টার দিকে জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ ইসমাইলের আদালতে এ সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়। এর আগে সকাল সাড়ে ৯টার দিকে কক্সবাজার জেলা কারাগার থেকে মামলার ১৫ আসামিকে প্রিজন ভ্যানে করে কড়া পুলিশ পাহারায় আদালতে আনা হয়।

পিপি ফরিদুল বলেন, গত ২৩ থেকে ২৫ আগস্ট প্রথম দফায় সাক্ষ্যদানের জন্য ৮৩ জন সাক্ষীর মধ্যে ১৫ জনকে আদালত নোটিশ দিয়েছিলেন। ওই ৩ দিনে মামলার বাদী ও ২ নম্বর সাক্ষী জবানবন্দী প্রদান করেন। গত রবিবার থেকে শুরু হওয়া দ্বিতীয় দফায় তৃতীয় দিন পর্যন্ত মামলার ৩ জন সাক্ষীর সাক্ষ্য গ্রহণ করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, দ্বিতীয় দফায় শুরু হওয়া বিচার কাজে বুধবার (৮ সেপ্টেম্বর) পর্যন্ত আদালতের উপস্থিত হয়েছেন আরও দুই সাক্ষী। এতে দ্বিতীয় দফার চতুর্থ দিনে ঘটনাস্থলের নিকটবর্তী বায়তুল নূর জামে মসজিদের ইমাম শহীদুল ইসলামের জবানবন্দী গ্রহণের মধ্য দিয়ে সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত বছর ৩১ জুলাই রাতে কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়কের টেকনাফ উপজেলার বাহারছড়া ইউনিয়নের শামলাপুর চেকপোস্টে পুলিশের গুলিতে নিহত হন সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান।



আরও খবর



কাবুল ছাড়ার আগে ৭৩টি বিমান অকেজো করে গেছে মার্কিন বাহিনী

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ৩১ আগস্ট ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ৩১ আগস্ট ২০২১ | ৮৩০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আফগানিস্তানের মাটি ছাড়ার আগে কাবুল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের বহুসংখ্যক বিমান অকেজো করে রেখে গেছে মার্কিন সামরিক বাহিনী। একইসঙ্গে বহু সাঁজোয়া যান এবং বিমানবন্দরে থাকা উচ্চ-ক্ষমতা সম্পন্ন রকেট প্রতিরক্ষা ব্যবস্থাও অকার্যকর করে দেওয়া হয়েছে।

মার্কিন সামরিক বাহিনীর একজন জেনারেলের বরাত দিয়ে মঙ্গলবার (৩১ আগস্ট) এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বার্তাসংস্থা এএফপি। সোমবার মার্কিন সামরিক বাহিনী কাবুল ছেড়ে যাওয়ার ঠিক আগমুহূর্তে এসব বিমান, সাঁজোয়া যান এবং রকেট প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা অকেজো করে দেওয়া হয় বলে জানান তিনি।

মার্কিন সামরিক বাহিনীর সেন্ট্রাল কমান্ডের প্রধান জেনারেল কেনেথ ম্যাকেঞ্জি জানিয়েছেন, সোমবার কাবুল ছেড়ে চলে আসার আগে হামিদ কারজাই আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবস্থান করা ৭৩টি বিমানের সামরিক সক্ষমতা নষ্ট অথবা অকেজো করে দিয়েছেন মার্কিন সেনা সদস্যরা।

তার ভাষায়, ওইসব বিমান আর কখনোই উড্ডয়ন করতে পারবে না। কেউই সেগুলো আর কখনো সচল করতে বা পরিচালনা করতে পারবে না। নিশ্চিতভাবেই এসব বিমান আর কখনোই আকাশে উড়তে পারবে না।

জেনারেল কেনেথ ম্যাকেঞ্জি জানান, বিমান অকেজো করার পাশাপাশি কাবুল বিমানবন্দরে ফেলে আসা ৭০টি এমআরএপি সামরিক যান এবং ২৭টি হামভি সামরিক যানও অকেজো করে দেওয়া হয়েছে। এসব সামরিক যানও আর কেউই কখনও ব্যবহার কতে পারবে না। অকেজো করে দেওয়া এসব সামরিক যানের প্রতিটির মূল্য প্রায় ১০ লাখ মার্কিন ডলার করে।

এছাড়া কাবুল বিমানবন্দরে মোতায়েন থাকা উচ্চ-ক্ষমতা সম্পন্ন রকেট প্রতিরক্ষা ব্যবস্থাও অকার্যকর করে দেওয়া হয়েছে বলে জানান মার্কিন সামরিক বাহিনীর সেন্ট্রাল কমান্ডের প্রধান এই জেনারেল।

মার্কিন সেনারা কাবুল ছাড়ার একেবারে আগমুহূর্ত পর্যন্ত এই ব্যবস্থা সচল থাকলেও সফলভাবে তা অকেজো করেই আফগান ভূখণ্ড ত্যাগ করেন দেশটির সেনারা।



আরও খবর
বিশ্বে করোনায় মৃত্যু-শনাক্ত কমেছে

শনিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১




১ কোটি ১৮ লাখ ৯৬ হাজার টিকা মজুত রয়েছে: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:বুধবার ০১ সেপ্টেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ০১ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৬৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
চীনের সিনেফার্ম এবং রাশিয়ার স্পুটনিক-ভি থেকে সাড়া পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আমরা টিকা সংগ্রহের নিমিত্তে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণ করি। এর মধ্যে সিনেফার্মের সঙ্গে চুক্তি হয়েছে

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, মহামারি করোনা প্রতিরোধকল্পে এ পর্যন্ত (৩০ আগস্ট) এক কোটি ৮২ লাখ ৮৯ হাজার ১৮ জনকে প্রথম ডোজ এবং ৭৮ লাখ ৪০ হাজার ১৬৯ জনকে দ্বিতীয় ডোজ, মোট দুই কোটি ৬১ লাখ ২৯ হাজার ১৮৭ ডোজ টিকা প্রদান করা হয়েছে। ৩০ আগস্ট পর্যন্ত মজুত টিকার পরিমাণ ১ কোটি ১৮ লাখ ৯৬ হাজার ৩৪৩ ডোজ। করোনার সংক্রমণ প্রতিরোধে টিকা সংগ্রহ ও বিনামূল্যে টিকাদান কার্যক্রম চলমান।

বুধবার (১ সেপ্টম্বর) সরকারদলীয় সংসদ সদস্য শহীদুজ্জামান সরকারের (নওগাঁ-২) লিখিত প্রশ্নের জবাবে সংসদে এসব তথ্য জানান তিনি। এর আগে বিকেল ৫টায় স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদের অধিবেশন শুরু হয়।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিশ্বজুড়ে করোনার প্রাদুর্ভাব শুরু হওয়ার পরপরই সংক্রমণ প্রতিরোধে কার্যকর ব্যবস্থা হিসেবে বিনামূল্যে টিকা প্রদানের বিষয়টি আমার সরকার অগ্রাধিকার দিয়েছে। এ লক্ষ্যে করোনা টিকা আবিষ্কার ও ব্যবহারের অনুমতি প্রাপ্তির পূর্ব হতেই আমরা টিকা সংগ্রহ ও টিকা প্রদানের সর্বাত্মক প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।

বিশ্বের সব উৎপাদনকারী সংস্থার সঙ্গেই আমরা যোগাযোগ স্থাপন করেছি, এর মধ্যে কেবল ভারতের সিরাম ইনস্টিটিউট থেকে সাড়া পাই এবং অগ্রিম টাকা দিয়ে তিন কোটি ডোজ টিকা সংগ্রহের জন্য চুক্তি স্বাক্ষর করি। কিন্তু অন্যান্য উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান থেকে টিকা প্রাপ্তির কোনো সাড়া পাওয়া যায়নি। পরে কেবল চীনের সিনেফার্ম এবং রাশিয়ার স্পুটনিক-ভি থেকে সাড়া পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আমরা টিকা সংগ্রহের নিমিত্তে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণ করি। এর মধ্যে সিনেফার্মের সঙ্গে চুক্তি হয়েছে এবং স্থানীয়ভাবে উৎপাদনের জন্য সমঝোতা চুক্তিও সই হয়েছে।

তিনি বলেন, প্রতি মাসে যাতে এক কোটি ডোজের বেশি টিকা পাওয়া যায় তার ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। সিনেফার্ম থেকে প্রদত্ত সিডিউল অনুযায়ী আগামী অক্টোবর মাস থেকে প্রতি মাসে দুই কোটি হিসাবে আগামী ডিসেম্বর পর্যন্ত মোট ছয় কোটি টিকা পাওয়া যাবে। চলমান টিকা কার্যক্রম জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিতে সব বিভাগীয় সদর, জেলা সদর ও উপজেলা সদরে অবস্থিত ৬৭৩টি টিকা কেন্দ্রের মাধ্যমে জনগণকে টিকা প্রদান করা হচ্ছে। টিকা প্রদান কেন্দ্র ইউনিয়ন পর্যায়ে বিস্তৃত করা হয়েছে। টিকা প্রদানে প্রয়োজনীয় জনবলকে ইতোমধ্যে প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, গত ৭ আগস্ট টিকা ক্যাম্পেইন চলাকালে একদিনে ৩০ লাখ ৯১ হাজার ৬৩২ ডোজ টিকা প্রদান করা হয়েছে। এ পর্যন্ত (৩০ আগস্ট) মোট দুই কোটি ৬১ লাখ ২৯ হাজার ১৮৭ ডোজ টিকা প্রদান করা হয়েছে। যার মধ্যে প্রথম ডোজ পেয়েছে এক কোটি ৮২ লাখ ৮৯ হাজার ১৮ জন এবং দ্বিতীয় ডোজ পেয়েছে ৭৮ লাখ ৪০ হাজার ১৬৯ জন।


আরও খবর



মাজারে যাওয়ার সময় নৌকা থেকে পড়ে ২ নারীর মৃত্যু

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৬৩৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সিরাজগঞ্জের যমুনা নদীতে নৌকা থেকে পড়ে গিয়ে দুই নারীর মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় নিখোঁজ রয়েছেন  আরও পাঁচ যাত্রী।

বৃহস্পতিবার (০৯ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যার দিকে জেলার চৌহালী উপজেলার এনায়েতপুর স্পার বাঁধ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- জামালপুর জেলার ইসলামপুর উপজেলার পাতাসি গ্রামের জহির উদ্দিনের স্ত্রী ঝালিমন বেগম (৬০) ও দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার খুড়মা মধ্য পাড়া গ্রামের জব্বার আলীর স্ত্রী ফুলজান বেগম (৫০)।

নিখোঁজরা হলেন- জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জের খুরমা তোতা মিয়ার ছেলে জাহিদ হোসেন (৮), ওমর আলীর স্ত্রী সুফি বেগম (৫০), মিন্টু হোসেনের স্ত্রী হেলেনা খাতুন (৩০) ও তার ছেলে ইয়াসিন (৬) এবং আব্দুস সাত্তার (৬০)।

এনায়েতপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) জাকির হোসেন মোল্লা জানান, আগামী বছর এনায়েতপুর খাজা ইউনুস আলী দরবার শরীফের বাৎসরিক ওরস মাহফিল। এ উপলক্ষে জামালপুরের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে মাহফিলের জন্য বাঁশ সংগ্রহ করা হয়েছিল। সেগুলো নিয়েই দরবারে আসছিলেন মুরিদরা।

তবে তাদের বহন করা নৌকাটি এনায়েতপুর স্পার বাঁধ এলাকায় এলে বেশ কয়েকজন যাত্রী বাঁশসহ পড়ে যায়। এ সময় অন্যান্যরা সাঁতার কেটে তীরে উঠলেও সাতজন নিখোঁজ হন। এদের মধ্যে স্থানীয়রা দুই জনের মরদেহ উদ্ধার করেছে। নিখোঁজদের উদ্ধারে রাজশাহী থেকে ডুবুরি দল আনা হচ্ছে বলে জানান পরিদর্শক জাকির হোসেন।

নিউজ ট্যাগ: নারীর মৃত্যু

আরও খবর
সিরাজগঞ্জে তীব্র নদী ভাঙন অব্যাহত

রবিবার ০৫ সেপ্টেম্বর ২০২১




মা হচ্ছেন প্লেব্যাক কুইন নেহা কক্কর

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২১ সেপ্টেম্বর 20২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২১ সেপ্টেম্বর 20২১ | ৪২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বলিউডের প্লেব্যাক কুইন নেহা কক্কর মা হতে চলেছেন, এমন গুঞ্জন চলছে দীর্ঘদিন ধরে। সম্প্রতি গায়িকার বেশ কিছু ছবি আবারও এ গুঞ্জনের আগুনে ঘি ঢালে।

কিছু দিন আগে জনসম্মুখে দেখা গেছে নেহাকে। সেখানে তিনি ওড়না দিয়ে পেট ঢাকার চেষ্টা করেন। এরপর গুঞ্জন আরও বাড়ে।

গায়িকা সম্প্রতি রিয়্যালিটি শো ড্যান্স দিওয়ানের তৃতীয় মৌসুমের মঞ্চে হাজির হয়েছিলেন। সেখানেই মুখ খোলেন অন্তঃসত্ত্বার গুঞ্জন নিয়ে। জানান, রোহনপ্রীত সিং ও তিনি বাচ্চা নেওয়ার পরিকল্পনা এখনও করেননি। তবে তিনি সন্তান নিতে চান। ওই শোর প্রতিযোগী গুঞ্জনের মতো বাচ্চা চান বলেও জানান নেহা। গুঞ্জনের নাচেও মুগ্ধ হন তিনি।

অনুষ্ঠানে লুঙ্গি ড্যান্সগানের তালে নেচে নজর কাড়েন গুঞ্জন। নেহা কক্করও ছোট্ট বাচ্চাটিকে প্রশংসায় ভাসান। বলেন, ঈশ্বর তোমার মঙ্গল করুন। শুভ কামনা রইল। রোহু (রোহনপ্রীত) ও আমি এখনও সন্তান নেওয়ার কথা ভাবিনি। কিন্তু আমাদের যদি কখনও বাচ্চা হয়, আমরা চাইব বাচ্চাটা যেন গুঞ্জনের মতো হয়।

গত বছরের ২৪ অক্টোবর দীর্ঘদিনের বন্ধু রোহনপ্রীত সিংকে বিয়ে করেন নেহা কক্কর। এর পর বেশ কয়েকবার অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার গুঞ্জনে শিরোনাম হয়েছেন তিনি।

নিউজ ট্যাগ: নেহা কক্কর

আরও খবর
আক্রমণাত্মক মন্তব্যের শিকার নুসরাত

শুক্রবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১

হাইকোর্টে জামিন পেলেন মডেল মৌ

বৃহস্পতিবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১