আজঃ শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২
শিরোনাম

দেশে করোনা শনাক্তের হার ১১ শতাংশ ছাড়াল

প্রকাশিত:বুধবার ১২ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১২ জানুয়ারী ২০২২ | ৫০৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের মতো বাংলাদেশেও করোনাভাইরাসের সংক্রমণ উদ্বেগজনক হারে বাড়ছে। দীর্ঘদিন পর তৃতীয় দিনের মতো দৈনিক শনাক্ত করোনা রোগীর সংখ্যা দুই হাজার ছাড়িয়েছে। 

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় ২ হাজার ৯১৬ জনের শরীরে করোনা ধরা পড়েছে। এ নিয়ে মোট শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৬ লাখ ১ হাজার ৩০৫ জনে। নমুনা পরীক্ষার বিপরীতে দৈনিক শনাক্তের হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে  ১১ দশমিক ৬৮ শতাংশে। বুধবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। এ সময়ে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৪ জন মারা গেছেন। এ নিয়ে দেশে এখন পর্যন্ত ২৮ হাজার ১১১ জনের মৃত্যু হয়েছে এই ভাইরাসটিতে।

গত বছরের ৮ মার্চ দেশে প্রথম ৩ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। এর ১০ দিন পর ওই বছরের ১৮ মার্চ দেশে এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রথম একজনের মৃত্যু হয়। চলতি বছরের ৫ ও ১০ আগস্ট দুদিন সর্বোচ্চ ২৬৪ জনের মৃত্যু হয়।

দেশে করোনাভাইরাসের প্রথম সংক্রমণ ধরা পড়েছিল গত বছরের ৮ মার্চ। প্রথম রোগী শনাক্তের ১০ দিন পর গত বছরের ১৮ মার্চ দেশে প্রথম মৃত্যুর তথ্য নিশ্চিত করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। সেই বছর সর্বোচ্চ মৃত্যু হয়েছিল ৬৪ জনের। ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট ছড়িয়ে পড়ায় চলতি বছর জুন থেকে রোগীর সংখ্যা হু-হু করে বাড়তে থাকে। ২৮ জুলাই একদিনে সর্বোচ্চ ১৬ হাজার ২৩০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছিল।

চলতি বছরের গত ৭ জুলাই প্রথমবারের মতো দেশে করোনায় মৃতের সংখ্যা ২০০ ছাড়িয়ে যায়। এর মধ্যে ৫ ও ১০ আগস্ট ২৬৪ জন করে মৃত্যু হয়, যা মহামারির মধ্যে একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যু। এরপর বেশকিছু দিন ২ শতাধিক মৃত্যু হয়। এরপর গত ১৩ আগস্ট মৃত্যুর সংখ্যা ২০০ এর নিচে নামা শুরু করে। দীর্ঘদিন শতাধিক থাকার পর গত ২৮ আগস্ট মৃত্যু ১০০ এর নিচে নেমে আসে।

২০২০ সালের এপ্রিলের পর চলতি বছরের ১৯ নভেম্বর প্রথম করোনাভাইরাস মহামারিতে মৃত্যুহীন দিন পার করে বাংলাদেশ।সর্বশেষ দ্বিতীয়বারের মতো ৯ ডিসেম্বর মৃত্যুশূন্য দিন পার করেছে দেশ।


আরও খবর



এবার গুলিস্তানের রোড ডিভাইডারে বাস: নিহত ১

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ৩০ ডিসেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ৩০ ডিসেম্বর ২০২১ | ৪৫৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রাজধানীর গুলিস্তানে রোড ডিভাইডারে বাস উঠে গেলে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন দুজন। গুলিস্তানে মেয়র হানিফ ফ্লাইওভার সংলগ্ন সার্জেন্ট আহাদ পুলিশ বক্সের বিপরীত পাশের সড়কে বৃহস্পতিবার বিকেল ৩টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

পল্টন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সালাউদ্দিন মিয়া জানান, শ্রাবণ পরিবহনের বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রোড ডিভাইডারে উঠে যায়। এতে রাস্তার পাশে থাকা পথচারীদের অন্তত তিনজন আহত হন। হাসপাতালে একজন মারা গেছেন।

এর আগে রাজধানীর খিলক্ষেত এলাকায় গত মঙ্গলবার এনা পরিবহনের একটি বাস রোড ডিভাইডার ভেঙে অন্য পাশে থাকা মাইক্রোবাসের ওপর পড়ে। এতে মাইক্রোবাসটির চালক আহত হন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শ্রাবণ পরিবহনের যে বাসটি দুর্ঘটনার শিকার হয় তা চালাচ্ছিলেন এমদাদ নামের পুলিশের একজন সদস্য। গুলিস্তান কাপ্তান বাজার কমপ্লেক্স ভবনের সামনে থেকে গাড়িটি জব্দ করেন পুলিশের ওই সদস্য। চালককে নামিয়ে দিয়ে নিজেই চালকের আসনে বসেন। গাড়িটি চালিয়ে সার্জেন্ট আহাদ পুলিশ বক্সে আসার কথা ছিল।


আরও খবর



মদপানে রুয়েট শিক্ষার্থীর মৃত্যু

প্রকাশিত:সোমবার ০৩ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ০৩ জানুয়ারী ২০২২ | ৪৩৫জন দেখেছেন

Image

রাবি প্রতিনিধি:

মদপান করে রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (রুয়েটের) যন্ত্রকৌশল বিভাগের ২০১৭-২০১৮ শিক্ষাবর্ষের এক শিক্ষার্থীর মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে।

রোববার (২ জানুয়ারী) দিবাগত রাত ১টা ১৫ মিনিটে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করে সে। এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে নগরীর মতিহার থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করেছে।

মৃত শিক্ষার্থীর নাম মাসুরুর মুহিত (২৩)। তার গ্রামের বাড়ি সিরাজগঞ্জ জেলার বেলকুচি থানার মুকুন্দগাঁতী গ্রামে। সে নগরীর তালাইমাড়ীর বি এস বি ছাত্রাবাস অবস্থান করতেন।

মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে মতিহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আনোয়ার হোসেন তুহিন বলেন, "ওই শিক্ষার্থী অতিরিক্ত মদ্যপান ফলে নাকি ভেজাল মদ পানে মারা গেছে সেটা নিশ্চিত করতে পারেননি তারা। তবে লাশের ময়নাতদন্ত রিপোর্ট এলে জানা যাবে।"

মামলা সূত্রে জানা গেছে, গত রবিবার রাত ৮টা ১৫ মিনিটে রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রুয়েট) যন্ত্রকৌশল বিভাগের শিক্ষার্থী মাসরুর মুহিতকে অসুস্থ অবস্থায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজের ১৬ নং ওয়ার্ডে ভর্তি করানো হয়। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত ১টা ১৫ মিনিটে তার মৃত্যু হয়।


আরও খবর



ইউরোপীয় পার্লামেন্টের প্রেসিডেন্টের মৃত্যু

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | ৩৩০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ইউরোপীয় পার্লামেন্টের প্রেসিডেন্ট ডেভিড স্যাসোলি (৬৫) মারা গেছেন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। ইতালির এভিয়ানো শহরের একটি হাসপাতালে আজ মঙ্গলবার স্থানীয় সময় ভোরে তিনি মারা যান স্যাসোলি। রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতাজনিত সমস্যায় গত মাস থেকে হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন।

ইতালির সাবেক এই সাংবাদিক মধ্যপন্থি বাম ধারার রাজনীতিবিদ গত দুই সপ্তাহ ধরে গুরুতর অসুস্থ ছিলেন।

গত নভেম্বরে নিজেকে রাজনৈতিক কাজকর্ম থেকে দূরে সরিয়ে নেন তিনি। তাঁর স্থলাভিষিক্ত নির্বাচনের জন্য চলতি জানুয়ারির শেষের দিকে ইউরোপীয় পার্লামেন্টে ভোট হওয়ার কথা রয়েছে।

এর আগে সেপ্টেম্বরে তিনি নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে গুরুতর অবস্থায় হাসপাতালে চিকিৎসা নেন ডেভিড স্যাসোলি। ২০১৯ সালের জুলাইয়ে ৭০৫ আসনের ইউরোপীয় পার্লামেন্টের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন সাবেক এই সংবাদকর্মী।


আরও খবর
হাসপাতালে ভর্তি মাহাথির মোহাম্মদ

শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২




কৃষ্ণাঙ্গ খুনে দোষী সাব্যস্ত শ্বেতাঙ্গ নারী পুলিশ কর্মকর্তা

প্রকাশিত:শনিবার ২৫ ডিসেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ২৫ ডিসেম্বর ২০২১ | ৪১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

কৃষ্ণাঙ্গ যুবক জর্জ ফ্লয়েডকে হত্যার অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত হয়েছেন মিনিয়াপোলিসের শ্বেতাঙ্গ পুলিশ অফিসার ডেরেক শভিন। সেই মিনিয়াপোলিস শহর থেকে সামান্য দূরে আরেক কৃষ্ণাঙ্গ যুবককে হত্যার দায়ে এবার দোষী সাব্যস্ত হলেন এক শ্বেতাঙ্গ নারী পুলিশ কর্মকর্তা।

শুক্রবার মিনেসোটা প্রদেশের আদালতের ১২ সদস্যের জুরি পুলিশ কর্মকর্তাকে দোষী সাব্যস্ত করেন। আদালত জানিয়েছে, পুলিশ ব্যাজের অবমাননা করেছেন ওই শ্বেতাঙ্গ পুলিশ অফিসার।

প্রথম ও দ্বিতীয় ডিগ্রি হত্যার অভিযোগ রয়েছে কিম্বারলি পটার নামে ওই অফিসারের বিরুদ্ধে। আগামী ফেব্রুয়ারিতে এই মামলার সাজা ঘোষণা করবেন বিচারক। শোনা যাচ্ছে, কিম্বারলির সর্বোচ্চ ১৫ বছরের জেল হতে পারে।

ঘটনাটি এ বছরের এপ্রিলের। ডন্টে রাইট নামে কুড়ি বছরের ওই কৃষ্ণাঙ্গ যুবককে ট্রাফিক সিগন্যালে গুলি করেছিলেন ৪৯ বছরের কিম্বারলি। যুবকের বিরুদ্ধে অভিযোগ ছিল, রাইটের গাড়ির নম্বর প্লেটের মেয়াদ ফুরিয়ে গিয়েছিল। এছাড়া তার গাড়ির রিয়ারভিউ মিররে ঝুলছিল এয়ার ফ্রেশনার, যা অবৈধ।

পুলিশ কর্মকর্তা কিম্বারলি আদালতকে জানিয়েছেন, তিনি রাইটকে দাঁড়াতে বললে ওই যুবক পালানোর চেষ্টা করেন। তারপরেই হুঁশিয়ারি দেন যে তিনি গুলি চালাবেন।

এর কিছুক্ষণের মধ্যেই নিজের হ্যান্ডগান থেকে গুলি চালান কিম্বারলি। মৃত্যু হয় ওই যুবকের। রাইটের মৃত্যুর পরেই এই ঘটনার বিচার চেয়ে বিক্ষোভ করেন মিনেসোটা প্রদেশের মানুষ।

নিহতের পরিবার এক বিবৃতিতে বলেছে, ‘‘আমরা খুশি, অন্যায়ভাবে আমাদের পরিবারের সন্তানকে খুন করা হয়, আমেরিকার সমাজে তার যথাযথ বিচার হয়েছে।’’

আদালতের রায়কে স্বাগত জানিয়েছে দ্য আমেরিকান সিভিল লিবার্টিস ইউনিয়নও।

এদিকে, অভিযুক্ত পুলিশ কর্মকর্তা যাতে নিজের পরিবারের সঙ্গে বড়দিন পালন করতে পারেন, আদালতের কাছে তাই জামিনের আর্জি জানিয়েছিলেন তার আইনজীবী। কিন্তু বিচারক রেজিনা চু সেই আর্জি খারিজ করে দেন।


আরও খবর
হাসপাতালে ভর্তি মাহাথির মোহাম্মদ

শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২




"আমার পরিবার আমার ফুল বাগান" শীর্ষক দম্পতি প্রশিক্ষণ

প্রকাশিত:বুধবার ১৯ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১৯ জানুয়ারী ২০২২ | ৪২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সমাজকে পরিবর্তন করতে হলে আমাদের পরিবারকে পরিবর্তন করতে হবে। এরকম প্রচেষ্টা নিয়ে কোডেক - প্রসপারিটি প্রকল্প খাউলিয়া প্রকল্প ইউনিট জেন্ডার কম্পনেন্টের আওতায় ৫ দিনের "আমার পরিবার আমার ফুল বাগান" শীর্ষক দম্পতি প্রশিক্ষনের আয়োজন করা হয়।

মোড়েলগঞ্জ উপজেলার ১৬ নং খাউলিয়া ইউনিয়নের পশুরবুনিয়া সাইক্লোন সেন্টার (সিআরসি অফিস) সভাকক্ষে  প্রশিক্ষণটি অনুষ্ঠিত হয়। প্রশিক্ষণটি উদ্ভোদন করেন মোঃ আল-মামুন তালুকদার (ফোকাল পার্সন, কোডেক প্রসপারিটি প্রকল্প) এবং প্রশিক্ষণটি পরিচালনা করেন মোঃ সিরাজুল ইসলাম (টেকনিক্যাল অফিসার- নিউট্রিশন), ডাঃ সজীব চন্দ্র শীল ও ডাঃ মোঃ ফয়সাল হোসেন ( সহকারী কারিগরি কর্মকর্তা - পুষ্টি)।

এই ইউনিয়নের ১২ যুগল (দম্পতি) এই প্রশিক্ষণে অংশগ্রহণ করেন উক্ত প্রশিক্ষণে নারী ও পুরুষের শারীরিক পরিচিতি, জেন্ডার বৈষম্যের প্রধান ক্ষেত্র সমূহ, সম্পদের ব্যবহার মালিকানা ও নিয়ন্ত্রণ, মতামত ও সিদ্ধান্ত গ্রহণে নারীর অভিগম্যতা, পারিবারিক নির্যাতন এবং নারী ও শিশুর প্রতি সহিংসতা, সরকারি ও বেসরকারি সেবাসমূহ, দূর্যোগ ব্যাবস্থ্যাপনায়  নারীর ভূমিকা বিষয়ে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়।

প্রশিক্ষণ শেষে প্রত্যেক দম্পতিকে একটি করে লিখিত প্রতিজ্ঞাপত্র দেওয়া হবে যাতে তারা পারিবারিক, তার চারপাশের মানুষ ও সমাজকে এই সকল বৈষম্য গুলোকে পিছনে ফেলে তাদের জীবনকে সুন্দরভাবে সাজিয়ে তুলতে পারবে।

উক্ত প্রশিক্ষণের সার্বিক সহযোগিতা করেন খাউলিয়া ইউনিয়ন এর নিউট্রিশন টিম ও জীবিকায়ন টিম। বাস্তবায়নেঃ কমিউনিটি ডেভেলপমেন্ট সেন্টার (কোডেক)। অর্থায়ন ও সহযোগিতায়ঃ ইউরোপিয়ায় ইউনিয়ন ও পিকেএসএফ।

নিউজ ট্যাগ: মোড়েলগঞ্জ

আরও খবর