আজঃ শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২
শিরোনাম

দিনাজপুরের পার্বতীপুরে শিশু ধর্ষণ মামলায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

প্রকাশিত:সোমবার ১০ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১০ জানুয়ারী ২০২২ | ৫৪৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

দিনাজপুর প্রতিনিধিঃ
দিনাজপুরের পার্বতীপুরে শিশু ধর্ষণ মামলায় অভিযুক্ত সাইফুল ইসলামকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ডে দন্ডিত করেছেন নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আদালতের বিচারক জেলা ও দ্বায়রা জজ শরীফ উদ্দিন আহমেদ। ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে তাকে আরো ৬ মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

আজ সোমবার দুপুর ওই রায় ঘোষণা করেন তিনি। সাজা ভোগ করতে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। তবে বেকসুর খালাস পেয়েছেন সহযোগি হিসেবে অভিযুক্ত আফজাল হোসেন কবিরাজ। গেল ২০১৬ সালের ১৮ অক্টোবর ধর্ষণের শিকার হন পূজা নামে ৫ বছর বয়সি ওই শিশু।

মামলার বিবরণে জানা গেছে, ২০১৬ সালের ১৮ অক্টোবর পার্বতীপুর উপজেলার জমিরেরহাট তকেয়া পাড়ায় ওই ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। বাড়ির পাশে খেলার সময় নিখোজ হয় ৫ বছর বয়সি শিশু পূজা। পরদিন বাড়ির পাশে হলুদ ক্ষেত্রে রক্তাক্ত এবং মুমুর্ষ অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে স্থানীয় ল্যাম্প এবং পরবর্তীতে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে তাকে ঢাকায় নিয়ে চিকিৎসা করানো হয়। চকলেট খাওয়ানোর লোভ দেখিয়ে তাকে ডেকে নিয়ে ব্লেড দিয়ে যৌনাঙ্গ কেটে ধর্ষণ করে প্রতিবেশী জহির উদ্দিনের ৪২ বছর বয়সী ছেলে সাইফুল ইসলাম। 

এঘটনায় ২দিন পর ২০ অক্টোবর সাইফুল ইসলামকে প্রধান এবং সহযোগি হিসেবে আফজাল হোসেন কবিরাজ নামে আরেক ব্যক্তির বিরুদ্ধে পার্বতীপুর মডেল থানায় মামলা করেন মেয়ের পিতা পিকআপ ভ্যানের চালক ( সুবল চন্দ্র দাস)। ৭দিনের রিমান্ড শেষে ২০১৭ সালের ফেব্রুয়ারী মাসে অভিযুক্ত দুইজনের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশীট (অভিযোগপত্র) দাখিল করেন তদন্ত কর্মকর্তা উপ পরিদর্শক আবু সাঈদ।


আরও খবর



অর্ধেক যাত্রী পরিবহন নিয়ে বৈঠকে বসেছে বিআরটিএ ও বাসমালিকেরা

প্রকাশিত:বুধবার ১২ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১২ জানুয়ারী ২০২২ | ৩৩০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

গণপরিবহনে স্বাস্থ্যবিধি মেনে অর্ধেক যাত্রী পরিবহন ও ভাড়া বাড়ানো হবে কি না, সেসব বিষয় নিয়ে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ) ও বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতি বৈঠকে বসেছে। আজ বুধবার বেলা আড়াইটার পরপরই রাজধানীর বনানীর বিআরটিএ কার্যালয়ে করোনার সংক্রমণ বাড়ায় সরকারের নির্দেশনা বাস্তবায়নে বাসমালিক নেতাদের সঙ্গে এই বৈঠক শুরু হয়েছে।

বৈঠক সূত্রে জানা যায়, স্বাস্থ্যবিধি মেনে অর্ধেক যাত্রী পরিবহনের ক্ষেত্রে ভাড়া বাড়ানোর পাশাপাশি প্রণোদনার দাবি করবেন বাসমালিকেরা।  

বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ বিআরটিএর চেয়ারম্যান নূর মোহাম্মদ মজুমদারের সভাপতিত্বে বৈঠকে সংস্থাটির পরিচালক (এনফোর্সমেন্ট) (যুগ্ম-সচিব) মো. সরওয়ার আলম, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির সভাপতি মসিউর রহমান রাঙ্গা, মহাসচিব খন্দকার এনায়েত উল্যাহ, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক ওসমান আলীসহ বাসমালিক ও সরকারের বিভিন্ন পর্যায়ের স্টেকহোল্ডার উপস্থিত রয়েছেন।

এদিকে বিআরটিএর পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে, গণপরিবহনে যাত্রী, চালক, সুপারভাইজার, হেলপার-কাম ক্লিনার এবং টিকিট বিক্রয় কেন্দ্রের দায়িত্বে নিয়োজিত ব্যক্তিগণের মাস্ক পরিধান নিশ্চিত করতে হবে। একই সঙ্গে তাদের জন্য প্রয়োজনীয় হ্যান্ড স্যানিটাইজারের ব্যবস্থা এবং সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে গণপরিবহনে যাত্রী ওঠানামার ব্যবস্থা করতে হবে।

তা ছাড়া যাত্রার শুরু ও শেষে মোটরযান পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নসহ জীবাণুনাশক দিয়ে জীবাণুমুক্ত করতে হবে। মোটরযানের মালিকদের যাত্রীদের হ্যান্ডব্যাগ, মালপত্র জীবাণুনাশক ছিটিয়ে জীবাণুমুক্ত করার ব্যবস্থাও করতে হবে।

নিউজ ট্যাগ: বিআরটিএ

আরও খবর



পাথরঘাটায় ১২ মণ নিষিদ্ধ হাঙ্গর জব্দ

প্রকাশিত:শনিবার ০১ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০১ জানুয়ারী ২০২২ | ৫৬০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বরগুনার পাথরঘাটায় ১২ মণ নিষিদ্ধ হাঙ্গর জব্দ করেছে কোষ্টগার্ড। এ সময় ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে দুজন জেলেকে করা হয়েছে অর্থদণ্ড।শনিবার (১ জানুয়ারি) সকালে এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, আজ শনিবার সকালে বঙ্গোপসাগরের পাথরঘাটা অঞ্চলে নিষিদ্ধ হাঙ্গর শিকার করে তীরে ফিরছে এমন খবর পায় কোস্ট গার্ড। তারা গোপনে হাঙ্গর বহন করা ট্রলারটিকে অনুসরণ করে। এরপর ট্রলারটি পাথরঘাটার শুটকি-পল্লীতে এলে উপজেলা প্রশাসন ও কোস্টগার্ড যৌথ অভিযান চালায়। এ সময় ট্রলারে থাকা দুজন জেলেকে আটক করে এবং বিপুল পরিমাণে ছোট-বড় ১২ মণ হাঙ্গর জব্দ করা হয়। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে দুজন জেলেকে ৩ হাজার টাকা করে ৬ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

পাথরঘাটা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হোসাইন মোহাম্মদ আল মুজাহিদ জানান, গোপন সংবাদের মাধ্যমে অভিযান পরিচালনা করে বিপুল পরিমাণে হাঙ্গর জব্দ করে কোস্টগার্ড। পরে বিষয়টি আমাদের জানালে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে ঘটনার সত্যতা পাই। আটক হওয়া দুই জেলেকে তিন হাজার টাকা করে অর্থদণ্ড দেওয়া হয়। বাকি জেলেরা পালিয়ে যায়। জব্দ হওয়া এসব হাঙ্গর নষ্ট করা হবে।

নিউজ ট্যাগ: হাঙ্গর জব্দ

আরও খবর



টঙ্গীতে ট্রেনে কাটা পড়ে প্রাণ গেল ২ নারীর

প্রকাশিত:সোমবার ১০ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১০ জানুয়ারী ২০২২ | ২৫৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

গাজীপুরের টঙ্গীতে পৃথক স্থানে ট্রেনে কাটা পড়ে অজ্ঞাত দুই নারী নিহত হয়েছেন। রোববার মধ্যরাতে টঙ্গী পূর্ব আরিচপুর টঙ্গী রেল ব্রিজসংলগ্ন এলাকা ও আরিচপুর গাজীবাড়ির রেললাইনে এ দুটি দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতদের পরিচয় তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি, তবে তাদের মধ্যে একজনের বয়স আনুমানিক ২৫ ও অপরজনের ৬৫।

পুলিশ জানায়, রোববার রাত সোয়া ১২টায় অজ্ঞাত এক নারী টঙ্গী পূর্ব আরিচপুর টঙ্গী রেল ব্রিজসংলগ্ন এলাকা দিয়ে রেললাইন পার হচ্ছিলেন। এ সময় চট্টগ্রামগামী আন্তঃনগর তূর্ণা নিশিতা ট্রেনে কাটা পরে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

অন্যদিকে একই রাত সাড়ে ১০টায় টঙ্গী আরিচপুর গাজীবাড়ি এলাকার রেললাইনের ওপর দিয়ে হেঁটে যাচ্ছিলেন এক নারী। এ সময় সিলেট থেকে ঢাকাগামী আন্তঃনগর পারাবত এক্সপ্রেস ট্রেনের ইঞ্জিনে ধাক্কা লেগে মাথায় আঘাত পেয়ে হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন তিনি। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। খবর পেয়ে টঙ্গী রেলওয়ে পুলিশ উভয়ের লাশ উদ্ধার করে।

টঙ্গী রেলওয়ে ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই নূর মোহাম্মদ খান জানান, নিহতদের লাশ পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। লাশ দুটির সুরতহাল শেষে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এসব ঘটনায় ঢাকা রেলওয়ে থানায় মামলা হয়েছে বলেও জানান তিনি।


আরও খবর



বাস ট্রাকের সংঘর্ষে ভারতে নিহত ১৭

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৬ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ জানুয়ারী ২০২২ | ৩৮৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ভারতের ঝাড়খন্ড রাজ্যে বাস ও ট্রাকের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় ১৭ জন নিহতের ঘটনা ঘটেছে। দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও ২৬ জন। আহতদের মধ্যে তিন জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। গত বুধবার যাত্রীবাহী একটি বাসের সঙ্গে গ্যাস সিলিন্ডার বহনকারী একটি ট্রাকের সংঘর্ষ হয়। গোবিন্দপুর-সাহিবগঞ্জ হাইওয়েতে এ দুর্ঘটনা ঘটে। এই দুর্ঘটনায় শোক প্রকাশ করেছেন ভারতের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এক টুইট বার্তায় হতাহতের পরিবারের প্রতি শোক এবং সমবেদনা জানিয়েছেন। একই সঙ্গে আহতদের সুস্থতা কামনা করেছেন।

জানা গেছে, সাহিবগঞ্জের বারহারওয়া থেকে দেওঘর জেলার জাসিদিহ এলাকায় যাচ্ছিল যাত্রীবাহী বাসটি। দুর্ঘটনার সময় বাসটিতে প্রায় ৪০ জন যাত্রী  ছিলেন।

দুর্ঘটনার পর বাসটিতে আটকে পড়া বেশ কয়েকজনকে উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, ঘন কুয়াশার কারণে হয়তো ওই দুর্ঘটনা ঘটে থাকতে পারে। দুর্ঘটনায় মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে।  জানা যায়, গ্যাস সিলিন্ডার নিয়ে আসছিল ট্রাক। তার সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ ঘটে  বাসের।

সাহিবগঞ্জের বারহারওয়া থেকে দেওঘরের যোশিডি যাচ্ছিল বাসটি। সওয়ার ছিলেন ৪০ জন। দুর্ঘটনার ফলে, বাসটি একেবারে দুমড়ে মুচড়ে যায়। বেশির ভাগ যাত্রীই আটকে পড়েন ভিতরে। গ্যাস কাটার দিয়ে বাস কেটে বের করতে হয় আটকে পড়া যাত্রীদের। তবে ট্রাকে থাকা সিলিন্ডার বিস্ফোরণ হয়নি। হলে আরও বিপত্তি ঘটত। পুলিশ জানিয়েছে মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। আহতদের মধ্যে তিন জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এক টুইট বার্তায় নিহতদের পরিবার প্রতি ২ লাখ রুপি এবং আহতদের পরিবার প্রতি ৫০ হাজার রুপি সহায়তা দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন। তিনি হতাহতের পরিবারের প্রতি শোক এবং সমবেদনা জানিয়েছেন। একই সঙ্গে আহতদের সুস্থতা কামনা করেছেন।


আরও খবর
হাসপাতালে ভর্তি মাহাথির মোহাম্মদ

শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২




পশুখাদ্যে ভেজালরোধে ডিসিদের সতর্ক থাকার নির্দেশ

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২০ জানুয়ারী ২০22 | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২০ জানুয়ারী ২০22 | ৫১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পশুখাদ্যে কেউ যাতে ভেজাল দিতে না পারে সেজন্য জেলা প্রশাসকদের (ডিসি) সতর্ক থাকার নির্দেশ দিয়েছেন মৎস ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম

বৃহস্পতিবার জেলা প্রশাসক সম্মেলনে তৃতীয় দিনের দ্বিতীয় অধিবেশনে মৎস ও প্রাণিসম্পদ, নৌপরিবহন ও পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের মন্ত্রী এ কথা বলেন।

রেজাউল করিম বলেন, জেলা প্রশাসকদের মন্ত্রণালয়ের অধীনস্ত দপ্তর সংস্থাসমূহে সহযোগিতার জন্য তাদেরকে ধন্যবাদ জানিয়েছি। পাশাপাশি বাংলাদেশের প্রান্তিক সীমা থেকে শুরু করে ক্যাপিটাল পর্যন্ত আমাদের মাছ মাংস দুধ, ডিম উৎপাদন, বিপণন প্রক্রিয়ায় প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে যতো কর্মকাণ্ড আছে সেই কর্মকাণ্ডে তাদের দেখভাল করা, তদারকি করার অনুরোধ করেছি।

তিনি বলেন, সরকারের বিভিন্ন প্রকল্প যাতে যথাযথ বাস্তবায়ন হয়, কোন প্রকল্পের অর্থ অপব্যবহার না হয় সেজন্য তাদের অনুরোধ করেছি। কারেন্ট জাল বা অন্যান্য জাল দিয়ে মাছ ধরা অথবা পশুখাদ্যে ভেজাল যাতে কেউ দিতে না পারে, মৎস উৎপাদন ও পরিবহনের ক্ষেত্রে সরকারের যেসকল পরিকল্পনা আছে সেগুলো বাস্তবায়নে প্রশাসন যাতে সহায়তা করে সে বিষয়গুলোর প্রতি তাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছি।

মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ মাছ, মাংস, দুধ, ডিম উৎপাদনে একটা বৈপ্লবিক পরিবর্তন এসেছে। এই ধারাবাহিকতা যাতে অব্যাহত রাখা যায় সেক্ষেত্রে স্থানীয় প্রশাসনের সকল প্রকার সহযোগিতার জন্য আমরা আশাবাদ ব্যক্ত করেছি। আমাদের মৌলিক জায়গা হচ্ছে বাংলাদেশ আজ বিশ্বে মিঠাপানির মাছে তৃতীয় স্থানে, ইলিশ উৎপাদনে বিশ্বের বিস্ময় সৃস্টি করে সর্বোচ্চ উৎপাদনে। যেসকল মাছগুলো হারিয়ে গিয়েছিলো আমরা কৃত্রিম প্রজননের প্রক্রিয়ার মধ্য থেকে সেই মাছগুলোকে আমরা ফিরিয়ে এনেছি। এই বিস্ময়কর সাফল্যের জায়গাটা যাতে আমরা ধরে রাখতে পারি সেক্ষেত্রে প্রশাসন যাতে সহায়তা করে সেবিষয়গুলো আমরা তাদের দৃষ্টিতে এনেছি।

মৎস ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী আরও বলেন, জেলা প্রশাসকদের কিছু প্রস্তাব ছিল। সমুদ্র উপকূলীয়বর্তী এলাকায় যেসব ভেসেজগুলোতে লাইসেন্স জরুরি না সেগুলোকে কিভাবে ডিমার্ক করা যায়, আমরা সেখানে বলেছি বাংলাদেশি সিম্বল দিয়ে আমরা তাদের ডিমার্ক করব। কোন কোন এলাকায় আধুনিক শুটকি পল্লী করা যায় কি না সে প্রস্তাব ছিল, আমরা বলেছি অবশ্যই করা যাবে। কোন কোন এলাকায় নতুন করে কোন উদ্যোগ নেয়া যায় কি না বা যেসকল এলাকায় কোন কাজ চলছে তার ধরন পরিবর্তন করা যায় কি না, প্রশাসনকে কিভাবে সম্পৃক্ত করা যায় সে বিষয়গুলোতে আমরা বলেছি মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে কো-অপারেশনন থাকবে।

নিউজ ট্যাগ: শ ম রেজাউল করিম

আরও খবর