আজঃ সোমবার ২৩ মে ২০২২
শিরোনাম

গৃহবধূ হত্যায় সতিনসহ ৩ জনের মৃত্যুদণ্ডাদেশ

প্রকাশিত:বুধবার ১১ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১১ মে ২০২২ | ৬২৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

দিনাজপুরে এক গৃহবধূকে হত্যার দায়ে সতিনসহ তিনজনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এ ছাড়াও একজনকে আমৃত্যূ কারাদণ্ড ও একজনকে ১০ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

বুধবার (১১ মে) বিকেল ৩টার দিকে দিনাজপুর অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক এস এম রেজাউল বারী এ রায় দেন।

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলার দক্ষিণ সুজাপুর গ্রামের সাধনানন্দ চৌধুরীর স্ত্রী প্রতিমা রানী চৌধুরী (৪৫), তার ছেলে আকাশ চৌধুরী (২৭) এবং কাটাবাড়ী গ্রামের কার্তিক চন্দ্র মহন্তের ছেলে কাজল মহন্ত (৩১)

আমৃত্যু কারাদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি হলেন- সাধনানন্দ চৌধুরী (৬৩)। চকচকা গ্রামের রবীন্দ্রনাথ দাশের ছেলে জীবন চন্দ্র দাসকে (৩০) ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। সেই সঙ্গে তাকে এক লাখ টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও ছয় মাসের সশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, দিনাজপুরের ফুলবাড়ি উপজেলার দক্ষিণ সুজাপুর গ্রামের সাধনানন্দ চৌধুরী তার প্রথম স্ত্রী তপতী রানী চৌধুরীর সঙ্গে সংসার করাকালীন তার বিনা অনুমতিতে প্রতিমা রাণী চৌধুরীকে বিয়ে করেন। দ্বিতীয় বিয়ের পর থেকে প্রথম স্ত্রী তপতী রানীকে সাধনানন্দ চৌধুরী ভরণপোষণ দিতেন না। ফলে পরিবারে প্রতিনিয়িত কলহ লেগেই থাকত।

২০১৭ সালের ৬ এপ্রিল রাত ৯টার পর থেকে স্বামী, সতিন ও সতিনের ছেলেসহ পাঁচজন মিলে তপতী রানীকে নির্যাতন করেন। একপর্যায়ে তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেন তারা। পরে উত্তর কৃষ্ণপুর গ্রামের একটি বাঁশবাগানে নিয়ে মরদেহ আগুন ধরিয়ে দেন।

এ ঘটনায় নিহতের ছেলে শুভনন্দ চৌধুরী বাদী হয়ে ফুলবাড়ী থানায় মামলা করেন। পরে পুলিশ তদন্ত করে অভিযোগ দেন। মামলার চারজন আসামি ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। পরে আদালতে মামলাটি চলাকালীন ২২ জন সাক্ষ্য দেন।

মামলার বাদী শুভনন্দ চৌধুরী বলেন, দীর্ঘ ৫ বছর পর আমার মায়ের হত্যার ন্যায় বিচার পেলাম। আমি আশা করেছিলাম মামলার সব আসামির ফাঁসি হবে। কিন্তু দুজনের হয়নি, তারপরও এ রায়ে আমি খুশি। এই মামলায় যারা আইনি সহযোগিতা করেছেন সকলের প্রতি আমার শ্রদ্ধা।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ও সহকারী পিপি অ্যাডভোকেট আতাউর রহমান বলেন, এটি একটি যুগান্তকারী রায়।


আরও খবর
পাকা কলার কেজি ৫০ টাকা

রবিবার ১৫ মে ২০২২




মেক্সিকোয় দুই সাংবাদিককে গুলি করে হত্যা

প্রকাশিত:বুধবার ১১ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১১ মে ২০২২ | ৩৯০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

মেক্সিকোর পূর্বাঞ্চলের ভেরাক্রুজ প্রদেশে দুই সাংবাদিককে গুলি করে হত্যার ঘটনা ঘটেছে। দেশটির অ্যাটর্নি জেনারেলের পক্ষ থেকে এ তথ্য জানানো হয়। খবর রয়টার্সের। গত সোমবার অজ্ঞাত বন্দুকধারীরা গাড়িতে বসে থাকা ইয়েসিনা মোলিনেডো ও সেইলা গার্সিয়া নামের দুই সাংবাদিককে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। এতে সেখানে দুই সাংবাদিকে মৃত্যু হয়।

মেক্সিকোতে সংবাদকর্মীদের হত্যার সবচেয়ে ভয়াবহ বছর এটি। বেসরকারি সংগঠন আর্টিকেল ১৯এর তথ্য অনুযায়ী, দেশটির প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস ম্যানুয়েল লোপেজ ওব্রাদরের শাসনামলে গণমাধ্যমকর্মীদের ওপর সহিংসতা বেড়েছে।

মেক্সিকোর সিনালোয়ো প্রদেশের একটি রাস্তার পাশ থেকে প্রখ্যাত সাংবাদিক লুইস এনরিক রামিরেজের লাশ উদ্ধারের চার দিনের মাথায় দুজন সাংবাদিককে গুলি করে হত্যার ঘটনা ঘটেছে। উল্লেখ্য, লুইস এনরিকের লাশ উদ্ধারের আগে দেশটিতে এ বছরেই আট সাংবাদিককে হত্যার ঘটনা ঘটেছিল।


আরও খবর



দল থেকে বাদ পড়লেন অফ স্পিনার নাঈম হাসান

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ | ২৭০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

চট্টগ্রাম টেস্টের প্রথম ইনিংসে ক্যারিয়ার সেরা বোলিং করে (৩০-৪-১০৫-৬) নাঈম শিকার করেন ৬ উইকেট। এমন নান্দনিক পারফরম্যান্সের পর সোমবার থেকে ঢাকায় শুরু হতে যাওয়া সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টের দল থেকে বাদ পড়েছেন এই তরুণ অফ স্পিনার।

চট্টগ্রাম টেস্টের চতুর্থ দিনে নিজের বোলিংয়ে ফিল্ডিং করতে গিয়ে ডানহাতের মধ্যমায় চোট পেয়েছেন নাঈম হাসান। শ্রীলংকান অধিনায়ক দিমুথ করুনারত্নের স্ট্রেট ড্রাইভ থামাতে গিয়ে আঙুলে চোট পেয়েছেন নাঈম হাসান।

বৃহস্পতিবার এক্স-রে করানোর পর জানা যায়, নাঈমের আঙুলটি ভাঙা। তবু ব্যথা নিয়ে চট্টগ্রাম টেস্টের পঞ্চম দিন বোলিং করে গেছেন এই তরুণ অফ স্পিনার।

আঙুলের চোট সারতে নাঈমের এক মাসের মতো সময় লাগবে। তাই শ্রীলংকার বিপক্ষে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্ট খেলা হচ্ছে না নাঈমের।  বিসিবি সূত্রে এমনটি জানা যায়।


আরও খবর



নড়াইলে দু’পক্ষের সংঘর্ষে ভ্যান চালক নিহত

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৭ মে ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৭ মে ২০২২ | ২৫০জন দেখেছেন

Image

নড়াইল প্রতিনিধি:

নড়াইলের লোহাগড়ায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুপক্ষের সংঘর্ষে এক ভ্যান চালককে কুপিয়ে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। এ সময় কমপক্ষে দুপক্ষের ১০ জন আহত হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৭ মে) দুপুরের দিকে উপজেলার শাকুকখোলা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত মিজানুর শরীফ (৫২) ওই গ্রামের মৃত ওয়াদুদ শরীফের ছেলে। আহতদের লোহাগড়া ও নড়াইল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার নোয়াগ্রাম ইউনিয়ের শামুকখোলা গ্রামে আধিপত্য বিস্তার করাকে কেন্দ্র করে আলিম কাজী সমর্থিত লোকজনদের সাথে আসকার খন্দকার সমর্থিত লোকজনদের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে সংঘাত চলে আসছিল। মঙ্গলবার দুপুরে আসকার খন্দকারের নেতৃত্বে হোসেন খন্দকার, জাহিদ খন্দকার, মনির খন্দকার ও শহিদ খন্দকারসহ অর্ধশতাধিক লোক প্রতিপক্ষ ওবায়দুর কাজীর বাড়ি থেকে গরু ধরে নিয়ে যায়। পরে কালাম কাজীর বাড়ি থেকেও গরু ধরে নিয়ে যাওয়াকে কেন্দ্র করে উভয় পক্ষের লোকজন ইট-পাটকেল, লাঠি, রাম-দা, ঢাল-সড়কি নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ সময় আসকার খন্দকারের লোকজন সড়কি দিয়ে ভ্যান চালক মিজানুর শরীফকে কুপিয়ে হত্যা করে। সংঘর্ষে ইমদাদুল কাজী, মফিজুল কাজী, সৈয়দ আশরাফ আলী ও সোহাগ কাজীসহ কমপক্ষে ১০ জন আহত হয়। আহতদের লোহাগড়া ও নড়াইল সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

লোহাগড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শেখ আবু হেনা মিলন হত্যার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, বর্তমানে ওই গ্রামে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নড়াইল সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।


আরও খবর



গ্যাসকে অস্ত্র হিসেবে বিবেচনা করে রাশিয়া: জেলেনস্কি

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৮ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৮ এপ্রিল ২০২২ | ৪২৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি বলেছেন, গ্যাস এবং যে কোনও ধরনের বাণিজ্যকে অস্ত্র হিসেবে বিবেচনা করে রাশিয়া। বুধবার (২৭ এপ্রিল) স্থানীয় সময় রাতে জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে এমন মন্তব্য করেছেন তিনি। এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে বিবিসি।

জেলেনস্কি দাবি করেন, রাশিয়া তার জ্বালানির মাধ্যমে ইউরোপকে ব্ল্যাকমেইল করছেন। পোল্যান্ড ও বুলগেরিয়ায় গ্যাস সরবরাহ বন্ধ করে দেওয়ার মধ্য দিয়ে মস্কো দেখিয়ে দিয়েছে যে, ইউরোপের কেউ রাশিয়ার সঙ্গে স্বাভাবিক অর্থনৈতিক সহযোগিতা বজায় রাখার আশা করতে পারে না।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট বলেন, রাশিয়া শুধু গ্যাস নয়, যে কোনও বাণিজ্যকেই তারা অস্ত্র হিসেবে বিবেচনা করে। তিনি আরও বলেন, যত দ্রুত ইউরোপের সবাই স্বীকার করবে যে, বাণিজ্যে রাশিয়ার ওপর নির্ভর করা অগ্রহণযোগ্য, তত দ্রুত ইউরোপের বাজারে স্থিতিশীলতার গ্যারান্টি দেওয়া সম্ভব হবে।


আরও খবর



বেঙ্গালুরুতে গণধর্ষণের ঘটনায় ৭ বাংলাদেশির কারাদণ্ড

প্রকাশিত:শনিবার ২১ মে ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ২১ মে ২০২২ | ১৭০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ভারতের বেঙ্গালুরুতে এক বাংলাদেশি নারীকে গণধর্ষণের ঘটনায় ৯ বাংলাদেশিকে দোষী সাব্যস্ত করে শুক্রবার তাদের ৫ বছর থেকে যাবজ্জীবন পর্যন্ত কারাদণ্ড দিয়েছেন দেশটির একটি আদালত। গত বছরের ২৭ মে মাসে ২২ বয়সি ওই বাংলাদেশি নারীকে ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। খবর টাইমস অব ইন্ডিয়ার।

বেঙ্গালুরুর আদালত শুক্রবার ওই ধর্ষণ মামলার রায়ে চাঁদ মিয়া, মোহাম্মদ রিফাকদুল ইসলাম, মোহাম্মদ আলামিন হোসেন, রকিবুল ইসলাম, মোহাম্মদ বাবু শেখ, মোহাম্মদ ডালিম ও আজিম হোসেনসহ ৭ জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেন আদালত।

এ ছাড়া, তানিয়া খানকে ২০ বছর এবং মোহাম্মদ জামাল নামে দুজনকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়। আরও দুই নারী আসামিকে ৯ মাস করে কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

ভুক্তভোগীসহ অভিযুক্তরা সবাই বাংলাদেশি নাগরিক, যারা ভারতে প্রবেশ করে বেঙ্গালুরুতে অবৈধভাবে বসবাস করে আসছিলেন। মামলায় এক অভিযুক্ত ছিলেন ভারতীয়, তবে তাকে অভিযোগ থেকে খালাস দিয়েছেন আদালত।

অপরাধ সংঘটিতের ২৮ দিনের মধ্যে চাঞ্চল্যকর এই মামলার অভিযোগপত্র দাখিল এবং ৩ মাসে বিচার শেষ করা হয়। বাংলাদেশে প্রথমে ধর্ষণের একটি ভিডিও ভাইরাল হলে ঘটনাটি জানাজানি হয় এবং পরে বেঙ্গালুরুতে এটি সংঘটিত হয়েছে বলে প্রমাণিত হয়।

এ ঘটনায় ভারতীয় দণ্ডবিধির (আইপিসি) বিভিন্ন ধারা এবং অনৈতিক পাচার (প্রতিরোধ) আইনের পাশাপাশি ফরেনার্স অ্যাক্টের অধীনে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছিল। ধর্ষণের ওই ভিডিও ভাইরাল হলে ভারত ও বাংলাদেশে তীব্র ক্ষোভের সৃষ্টি হয় এবং জাতীয় পর্যায়ে আলোচনার জন্ম দেয়।

অপর ২ বাংলাদেশি নারীকে ফরেনার্স অ্যাক্টের অপরাধে দোষী সাব্যস্ত করে ৯ মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। মামলায় অভিযুক্ত ১২ জনের মধ্যে ১১ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এবং তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র জমা দেওয়া হয়েছে।


আরও খবর