আজঃ শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২
শিরোনাম

ওমিক্রনে ভারতের ‘ঝুঁকিপূর্ণ’ দেশের তালিকায় বাংলাদেশ

প্রকাশিত:সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ | ৬৬০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রনের সংক্রমণ বৃদ্ধি পাওয়ায় আন্তর্জাতিক বিমানযাত্রীদের জন্য সংশোধিত নির্দেশিকা জারি করেছে ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। ১ ডিসেম্বর রাত ১২টা থেকে এই নির্দেশিকা কার্যকরী হবে।

নতুন এই নির্দেশিকায় বাংলাদেশকে ঝুঁকিপূর্ণ দেশের তালিকাভুক্ত করেছে ভারত। এর ফলে তালিকাভুক্ত দেশগুলোর যাত্রীদের ভারতে প্রবেশের ক্ষেত্রে নিজ খরচে আরটি-পিসিআর পরীক্ষাসহ অতিরিক্ত ব্যবস্থা অনুসরণ করতে হবে।  

সোমবার ভারতীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের হালনাগাদ করা ঝুঁকিপূর্ণ দেশের তালিকায় থাকা বাকি দেশগুলো হলো-যুক্তরাজ্য, দক্ষিণ আফ্রিকা, ব্রাজিল, বতসোয়ানা, চীন, মরিশাস, নিউজিল্যান্ড, জিম্বাবুয়ে, সিঙ্গাপুর, হংকং ও ইসরায়েলসহ ইউরোপের দেশগুলো।

নির্দেশিকা অনুযায়ী, ওমিক্রন সংক্রমণের নিরিখে ঝুঁকিতে থাকা দেশগুলি থেকে ভারতে যাওয়া যাত্রীদের বিমানবন্দরে নামার সঙ্গে সঙ্গে বাধ্যতামূলক কোভিড পরীক্ষা করাতে হবে। এই পরীক্ষায় কারও পজিটিভ ধরা পড়লে তাকে কোয়ারেন্টিনে যেতে হবে। তার নিয়ম অনুযায়ী চিকিৎসা চলবে। নমুনায় জিনের সজ্জারীতিও পরীক্ষা করে দেখা হবে। বিমান ওঠার ৭২ ঘণ্টা আগে কোভিড পরীক্ষা করালেও, ভারতে নামার পরও পরীক্ষা করা হবে।

যে যাত্রীদের পরীক্ষার ফল নেগেটিভ হবে তাদেরও সাত দিন কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে। আট দিনের মাথায় তাদের ফের কোভিড পরীক্ষা করানো হবে। ঝুঁকির বাইরের দেশগুলি থেকে বিমানে আসা যাত্রীদের পাঁচ শতাংশকে টেস্ট করানো হবে।

ওমিক্রন নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা উদ্বেগ প্রকাশ করার পরই ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় আন্তর্জাতিক বিমানযাত্রীদের জন্য এই নির্দেশিকা জারি করে।


আরও খবর
হাসপাতালে ভর্তি মাহাথির মোহাম্মদ

শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২




পাবনায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৩

প্রকাশিত:রবিবার ০৯ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৯ জানুয়ারী ২০২২ | ৪৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পাবনা সদর উপজেলায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় এক শিক্ষার্থীসহ ৩ জন নিহত হয়েছে। রোববার (৯ জানুয়ারি) সকাল ৭টা থেকে সাড়ে ৭টার মধ্যে দুটি স্থানে এ ঘটনা ঘটে। সদর উপজেলার আতাইকুলায় ট্রাকের ধাক্কায় ভ্যানের চালকসহ দুজন নিহত হয়। আহত হয় একজন। এছাড়া একই উপজেলার জোতআদম এলাকায় করিমনের সাথে সংঘর্ষে নিহত হয় এক শিক্ষার্থী।

নিহতরা হলেন- সদর উপজেলার পুটিগাড়া গ্রামের মৃত তারন আলী বিশ্বাসের ছেলে ভ্যানচালক রবিউল ইসলাম বিশ্বাস (৬৫), একইগ্রামের কফিল উদ্দিনের ছেলে আব্দুল মোমিন (৪৫) ও শ্রীকৃষ্টপুর গ্রামের আসাদুল ইসলামের ছেলে সাজ্জাদ হোসেন (১৮)।

মাধপুর হাইওয়ে পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবুল কাশেম বলেন, সকাল সাড়ে ৭টার দিকে ভ্যানযোগে দুজন যাত্রী ধান ভাঙানোর জন্য মিলের দিকে যাচ্ছিলেন। পথে তেলকুপিতে হঠাৎ ভ্যানটি ভেঙে পড়ে। এ সময় বিপরীত দিক থেকে আসা একটি ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ভ্যানকে চাপা দিয়ে রাস্তার পাশে উল্টে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই ভ্যানচালক রবিউল মারা যায়। আহত অপর দুজনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হলে সেখানে মোমনিকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক। খবর পেয়ে হাইওয়ে পুলিশ ও পাবনা দমকল বাহিনীর সদস্যরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন ও ট্রাকটি আটক করে। ট্রাকের চালক ও হেলপার পালিয়ে যায়।

অন্যদিকে, সকাল সাতটার দিকে পাবনা সদর উপজেলার দাপুনিয়া ইউনিয়নের জোতআদম এলাকায় শ্যালোইঞ্জিনচালিত করিমনের সাথে সংঘর্ষে মোটরসাইকেল চালক সাজ্জাদ হোসেনের মৃত্যু হয়।

শহীদ রফিজ উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক নুর মোহাম্মদ এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, নিহত সাজ্জাদ মোটরসাইকেল নিয়ে টেবুনিয়ার দিকে যাচ্ছিলেন। পথে বিপরীতমুখী করিমনের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষে এ ঘটনা ঘটে। জোতআদম শহীদ রফিজ উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এবছর এসএসসি পাস করেছেন সাজ্জাদ।


আরও খবর



ইসরায়েলে সামরিক হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত, ২ পাইলট নিহত

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৪ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৪ জানুয়ারী ২০২২ | ২৫৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ইসরায়েলের একটি সামরিক হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হয়ে দুই পাইলট নিহত হয়েছেন। ওই ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও একজন। মঙ্গলবার ইসরায়েলি সামরিক বাহিনীর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ভূমধ্যসাগরের ওপরে ওই কপ্টারটি বিধ্বস্ত হয়েছে। দেশটির সেনাবাহিনী সূত্রে জানা যায়, হেলিকপ্টারটিতে দুই পাইলটসহ তিনজন আরোহী ছিলেন। একটি ট্রেনিংয়ে অংশ নেওয়া আইএমএফ আতালেফ হেলিকপ্টারটি সোমবার উত্তরাঞ্চলীয় শহর হাইফা উপকূলে ভূমধ্যসাগরে বিধ্বস্ত হয়েছে।

ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় দুই পাইলটের। পরে আহত অবস্থায় অন্যজনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। দুর্ঘটনার পর পরই সেখানে ইসরায়েলের স্পেশাল ফোর্সেস আন্ডারওয়াটার মিশন ইউনিটসহ উদ্ধারকারী দল মোতায়েন করা হয়।

সেনাবাহিনী জানিয়েছে, দুর্ঘটনায় এক ক্রু সদস্য সামান্য আহত হয়েছেন। ইসরায়েলি বিমান বাহিনীর কমান্ডার আমিকাম নরকিন জানিয়েছেন, আপাতত সব ধরনের ট্রেনিং স্থগিত করা হয়েছে। কী কারণে ওই দুর্ঘটনা ঘটেছে সে বিষয়টি এখনও নিশ্চিত নয়। দুর্ঘটনার কারণ আনুসন্ধানে তদন্ত চলছে।

 


আরও খবর
হাসপাতালে ভর্তি মাহাথির মোহাম্মদ

শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২




৭ জানুয়ারি প্রেক্ষাগৃহে আসছে না ‘আরআরআর’

প্রকাশিত:শনিবার ০১ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০১ জানুয়ারী ২০২২ | ৪২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আশঙ্কা ছিলই। শেষমেশ সত্যিই পিছিয়ে গেল এস এস রাজামৌলি পরিচালিত আরআরআর-এর মুক্তি। বছরের প্রথম দিনে ছবির অফিশিয়াল পেজ থেকে টুইট করে জানানো হয়েছে সে কথা।

৭ জানুয়ারি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির অপেক্ষায় ছিল ছবিটি। বছরের শুরুতে দক্ষিণী অভিনেতা রাম চরণ, জুনিয়র এনটিআর এবং বলি তারকা আলিয়া ভট্টের এই ছবির জন্য দিন গুনছিল দেশের উত্তর থেকে দক্ষিণ। কিন্তু করোনার দাপটে আরও দীর্ঘ হল সে অপেক্ষা।

ছবির অফিশিয়াল পেজে একটি বিবৃতি জারি করে বলা হয়েছে, অনেক চেষ্টা করেছি আমরা। কিন্তু কিছু পরিস্থিতি তৈরি হয়, যা আমাদের নিয়ন্ত্রণে থাকে না। ভারতের একাধিক রাজ্যে প্রেক্ষাগৃহ বন্ধ করে দেওয়ায় আমাদের কাছে আর কোনও রাস্তা নেই। তাই বাধ্য হচ্ছি, আপনাদের উত্তেজনায় বাধ সাধতে। ঠিক সময়ে ভারতীয় ছবির ঐতিহ্যকে ফিরিয়ে আনার প্রতিশ্রুতি দিলাম। ছবির উপরে লেখা, সবার কথা মাথায় রেখে ছবি মুক্তির তারিখ পিছিয়ে দেওয়া হল। প্রত্যেক অনুরাগীর নিঃশর্ত ভালবাসা পাওয়ায় আমরা কৃতজ্ঞ।

শাহিদ কপূরের জার্সি ছবির মুক্তি পিছিয়ে যাওয়ার পর থেকেই আশঙ্কা তৈরি হচ্ছিল আরআরআর নিয়ে। অনেকেই ভয় পাচ্ছিলেন, এই ছবিটিও পূর্বনির্ধারিত সময়ে মুক্তি পাবে না। দিন কয়েক আগে বলিউডের বাণিজ্য বিশ্লেষক তরণ আদর্শ টুইটে লেখেন, আরআরআর ২০২২-এ ৭ জানুয়ারিই মুক্তি পাবে। এসএস রাজামৌলি আমাকে পাকাপাকি ভাবে জানিয়েছেন। ছবি মুক্তির দিন পিছনো হবে না। কিন্তু করোনার ক্রমবর্ধমান রেখাচিত্রের দিকে তাকিয়ে সিদ্ধান্ত বদল করলেন প্রায় ৪০০ কোটি বাজেটের এই ছবির নির্মাতারা।

তেলুগুতে ছবির নাম রৌদ্রম রণম রুধিরাম। হিন্দি সংস্করণে সেটিই হয়েছে রাইজ রোর রিভোল্ট। গত বছরের ৩০ জুন ছবিটি মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। তার পর থেকেই করোনার দাপটে সমানে পিছিয়ে যাচ্ছে মুক্তির তারিখ।

 

নিউজ ট্যাগ: আরআরআর

আরও খবর



শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করতে চাই না, সশরীরে ক্লাস করাটা জরুরি: শিক্ষামন্ত্রী

প্রকাশিত:শনিবার ০৮ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০৮ জানুয়ারী ২০২২ | ৪৭০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেছেন, সরকার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করতে চায় না। গত দেড় বছরে শিক্ষা খাতে যে ঘাটতি হয়েছে, তা পুষিয়ে নিতে সশরীরে ক্লাস করাটা সবচেয়ে বেশি জরুরি। প্রত্যেক শিক্ষার্থী যেন টিকা নিয়ে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে আসে ,তার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

আজ শনিবার দুপুরে রাজধানীর আফতাবনগরে এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ কথা জানান তিনি।

ডা. দীপু মনি বলেন, আমাদের আরও অনেক বেশি সজাগ থাকতে হবে। করোনার সংক্রমণ বাড়ছে। গত দেড় বছরে শিক্ষা খাতে যে ঘাটতি হয়েছে, তা পুষিয়ে নিতে সশরীরে ক্লাস করাটা সবচেয়ে বেশি জরুরি। কিন্তু দেখা যাচ্ছে, অনেকই স্বাস্থ্যবিধির তোয়াক্কা না করে যেভাবে চলছে, তাতে শিক্ষা খাতের সমস্যাটাই বেশি হবে। সন্তানদের কথা মাথায় রেখে আমরা প্রত্যেকেই যেন স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলি।

অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী আরও বলেন, ২০৪১ সালের মধ্যে আমরা উন্নত দেশে রূপান্তর হব। ২১০০ সালে বাংলাদেশকে একটি বদ্বীপ করার পরিকল্পনা রয়েছে বলেও আপনারা জানেন। আমরা আমাদের এই দেশ কারও দানে কিংবা কোনো সালিসে বসে পাইনি। আমরা যুদ্ধ করে, রক্ত জরিয়ে আমাদের স্বাধীনতা পেয়েছি। শিক্ষা নিয়ে আমরা যে এগোব, আমাদের অনেকগুলো লক্ষ্য আছে। আমাদের চতুর্থ শিল্পবিপ্লব আছে, সেখানে আমাদের চ্যালেঞ্জ রয়েছে। কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাসহ চারদিকে নানা প্রযুক্তি আছে, সেগুলোর জন্য আমাদের প্রস্তুত হতে হবে। আগের বিপ্লবগুলোকে আমরা ধরতে পারিনি। চতুর্থ শিল্পবিপ্লবকে আমাদের ধরতেই হবে। আমাদের নতুন কাজের জন্য তৈরি হতে হবে, যার জন্য আমাদের প্রযুক্তিবান্ধব হতে হবে।

নিউজ ট্যাগ: ডা. দীপু মনি

আরও খবর
গণ-অনশনে শাবিপ্রবি শিক্ষার্থীরা

শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২




ভোজ্যতেলের দাম আপাতত বাড়ছে না: টিপু মুনশি

প্রকাশিত:বুধবার ১৯ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১৯ জানুয়ারী ২০২২ | ২২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ভোজ্যতেলের দাম আপাতত বাড়ছে না। আগামী ১৫ দিন পর এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি।

আজ বুধবার (১৯ জানুয়ারি) ভোজ্যতেল ব্যবসায়ীদের সাথে বৈঠক শেষে তিনি সাংবাদিকদের একথা জানান।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ব্যবসায়ীরা নিজেরা সিদ্ধান্ত নিয়ে দাম কিছুটা বাড়িয়েছিল। তাদেরকে অনুরোধ করেছি একটু সময় দিত। আগামী ১৫ দিন পর আন্তর্জাতিক বাজার ও শুল্ক কাঠামোসহ সব কিছু বিবেচনায় নিয়ে যৌক্তিক দাম নির্ধারণ করা হবে।

তিনি বলেন, ১৫ দিন পর যদি আন্তর্জাতিক বাজারে দাম কমে তাহলে সেটা অব্যশই বিবেচনায় নেওয়া হবে। আর যদি দাম বাড়ে তাহলে সেটাও পর্যালোচনা করব। সবকিছু বিবেচনায় নিয়ে দামের বিষয়ে যৌক্তিক সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

টিপু মুনশি বলেন, আগামী ১৫ দিনে আমরা মাঠপর্যায়ে আরও তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ করব। ভোজ্যতেলের ওপর সব ধরনের শুল্ক কাঠামো আবারও খতিয়ে দেখব। এরপর আবার ব্যবসায়ীদের নিয়ে বসব। সেখানে নতুন করে পর্যালোচনার পর ভোজ্যতেলের নতুন দাম জানানো হবে।

আগামী রমজান মাসে বাজারে ভোজ্যতেলের দাম যেন স্থিতিশীল থাকে সে ব্যাপারে ব্যবসায়ীদের সহযোগিতা চান তিনি।

বর্তমানে সরকার নির্ধারিত দামে খোলা সয়াবিন প্রতি লিটার ১৩৬ টাকা এবং বোতলজাত সয়াবিন প্রতি লিটার ১৬০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।


আরও খবর