আজঃ শনিবার ২২ জানুয়ারী 20২২
শিরোনাম

প্রতিবেশীকে হত্যার অভিযোগে যুব মহিলা লীগ নেত্রী কারাগারে

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | ৫৫৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার মাজুখান এলাকায় প্রতিবেশী এক বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যার দায়ে যুব মহিলা লীগের এক নেত্রীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গতকাল সোমবার (১০ জানুয়ারি) বিকেলে তাকে আদালতের মাধ্যমে গাজীপুর জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেপ্তারকৃত নেত্রী উপজেলার মাজুখান গ্রামের সেলিম হোসেনের স্ত্রী আফরোজা আক্তার ঝুমুর (৩২)।

পুলিশ ও নিহতের পরিবার জানায়, বাড়ির সীমানাপ্রাচীর নিয়ে কালিয়াকৈর উপজেলার মাজুখান গ্রামের আবদুল মান্নান নামের এক বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যা করার অভিযোগ উঠে। ওই ঘটনায় নিহতের ছেলে ফারুক হোসেন গত রোববার রাতে আট জনকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।

ওই মামলার আসামিরা হলেন, মাজুখান গ্রামের বাসিন্দা ও মৌচাক ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক সেলিম হোসেন, তার স্ত্রী উপজেলা যুব মহিলা লীগের যুগ্ম সম্পাদক আফরোজা আক্তার ওরফে ঝুমুর, সেলিমের পিতা আবদুল মজিদ, সেলিম হোসেনের ছেলে মো. অনিক, প্রতিবেশী মাসুদ মিয়া, অয়ন হোসেন, সলিমন ও রেখা বেগম।

ওইদিনই পুলিশ অভিযান চালিয়ে যুব মহিলা লীগের নেত্রীকে গ্রেপ্তার করে। গতকাল সোমবার তাকে আদালতের মাধ্যমে গাজীপুর জেলহাজতে পাঠানো হয়।

মৌচাক পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) সাইফুল আলম জানান, আফরোজা আক্তার ঝুমুরকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে। ওই মামলার অন্য আসামিদের গ্রেপ্তার করতে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। এ ঘটনায় পর থেকে এলাকাবাসী অভিযুক্তদের গ্রেপ্তার ও বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ-মানববন্ধন করছে।

নিউজ ট্যাগ: হত্যার অভিযোগ

আরও খবর



হাইকোর্টে জামিন আবেদন করেছেন রফিকুল ইসলাম মাদানী

প্রকাশিত:সোমবার ১০ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১০ জানুয়ারী ২০২২ | ৪৫০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়ের করা দুই মামলায় ইসলামি বক্তা রফিকুল ইসলাম মাদানী জামিন চেয়ে হাইকোর্টে আপিল আবেদন জানিয়েছেন। সোমবার (১০ জানুয়ারি) তার আইনজীবী অ্যাডভোকেট ইব্রাহিম খলিল খান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, গত ৯ জানুয়ারি বিচারপতি মোস্তফা জামান ইসলামের নেতৃত্বাধীন হাইকোর্ট বেঞ্চে এই আপিল দায়ের করা হয়।

এর আগে গাজীপুরের গাছা থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় সম্প্রতি ঢাকা সাইবার ট্রাইব্যুনাল রফিকুল ইসলাম মাদানীর জামিন আবেদন নামঞ্জুর করেন। এছাড়াও রাজধানীর তেজগাঁও থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়ের করা মামলায় ঢাকার জেলা জজ আদালতে তার জামিন নামঞ্জুরের আদেশ হয়েছে। তাই দুটি বিচারিক আদালতে জামিন নামঞ্জুরের আদেশের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে আপিল করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, রাষ্ট্রবিরোধী উসকানি, ঔদ্ধত্যপূর্ণ বক্তব্য এবং বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির অভিযোগে ২০২১ সালের ৭ এপ্রিল রাত সাড়ে ৩টার দিকে রফিকুলকে নেত্রকোনার নিজ বাড়ি থেকে আটক করে র‌্যাব। ওই সময় তার কাছ থেকে চারটি মোবাইল ফোন জব্দ করা হয়। এরপর রফিকুল ইসলাম মাদানীর বিরুদ্ধে বিভিন্ন জায়গায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে একাধিক মামলা করা হয়।

এরপর একই বছরের ১১ এপ্রিল রফিকুল ইসলাম মাদানীর বিরুদ্ধে গাজীপুরের বাসন থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের করা হয়। তার বিরুদ্ধে মারাত্মক মিথ্যা, ভয়ভীতি দেখিয়ে ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করে মানহানিকর তথ্য প্রকাশ এবং আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি অবনতি করার মতো অপরাধে সহায়তার অভিযোগ আনা হয়।


আরও খবর
রিফাত হত্যা: খালাস চেয়ে মিন্নির জেল আপিল

বৃহস্পতিবার ২০ জানুয়ারী ২০22




সপ্তাহের ব‍্যবধানে আরেক দফা বেড়েছে সবজির দাম

প্রকাশিত:শুক্রবার ২১ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২১ জানুয়ারী ২০২২ | ১৯০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সপ্তাহের ব‍্যবধানে রাজধানীর বাজারে আরেক দফা বেড়েছে সবজির দাম। তবে কমেছে ব্রয়লার মুরগি, টমেটো ও আলুর দাম। শুক্রবার (২১ জানুয়ারি) রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা ঘুরে এ চিত্র দেখা গেছে।

বাজারে বেড়েছে ফুলকপি, বাঁধাকপি, শসা ও বেগুনের দাম। প্রতি পিস ফুলকপি ৪০-৫০, বাঁধাকপি ৩০-৩৫ টাকা, শসা কেজি ৩৫-৪০ টাকা এবং লম্বা বেগুন বিক্রি হচ্ছে ৪০-৬০ টাকায়।

তবে টমেটো ও আলুর দাম কমেছে। টমেটো বিক্রি হচ্ছে ২০-২৫ টাকায়। ৫ টাকা কমে আলু বিক্রি হচ্ছে ১৫ টাকায়।

এছাড়া প্রতি কেজি শিম ৬০, পেঁপে ৩০, করলা ৬০, মুলা ২০, কাঁচামরিচ ৬০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। চাল কুমড়া প্রতি পিস ৩৫-৪০ টাকায়, মিষ্টি কুমড়া ৪০ থেকে ৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

তবে আরও কমেছে ব্রয়লার মুরগির দাম। কেজিতে ১০ টাকা কমে ব্রয়লার মুরগি বিক্রি হচ্ছে ১৫০-১৭০ টাকা, সোনালী মুরগি ২৬০ থেকে ২৮০ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে, লেয়ার ২২০ থেকে ২২৫, দেশি মুরগি বিক্রি হচ্ছে ৪৫০ থেকে ৪৮০ টাকা কেজি।

এদিকে ভোজ‍্য তেলের দাম কেজিতে বেড়েছে ৫ টাকা পযর্ন্ত। বাজারে প্রতি লিটার খোলা সয়াবিন তেল বিক্রি হচ্ছে ১৪৩-১৪৮ টাকা, বোতলজাত বিক্রি হচ্ছে ১৫০ থেকে ১৬০ টাকা, খোলা পাম অয়েল প্রতি লিটার বিক্রি হচ্ছে ১৩২- ১৩৬, পাম অয়েল সুপার বিক্রি হচ্ছে ১৩৫ থেকে ১৪০ টাকা লিটার।

বাজাপরে দেশি পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৩০-৪০ টাকা, আমদানি করা পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৪৫ থেকে ৫০ টাকা, দেশি রসুন বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৭০ টাকা, আমদানি করা রসুন বিক্রি হচ্ছে ১০০ থেকে ১২০ টাকা, দেশি আদা বিক্রি হচ্ছে ৮০ থেকে ১২০ টাকা, শুকনো মরিচ ১৬০ থেকে ১৮০ টাকা কেজি বিক্রি করতে দেখা গেছে।

নিউজ ট্যাগ: সবজির দাম

আরও খবর
ভরা মৌসুমেও চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে সবজি

শুক্রবার ১৪ জানুয়ারী ২০২২

বাজারে বেশির ভাগ সবজির দাম কমেছে

শুক্রবার ১৭ ডিসেম্বর ২০২১




মাদকবিরোধী অভিযানে রাজধানীতে গ্রেফতার ৩১

প্রকাশিত:রবিবার ০২ জানুয়ারী 2০২2 | হালনাগাদ:রবিবার ০২ জানুয়ারী 2০২2 | ৩১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় মাদকবিরোধী অভিযান চালিয়ে মাদক বিক্রি ও সেবনের অভিযোগে ৩১ জনকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) বিভিন্ন অপরাধ ও গোয়েন্দা বিভাগ।

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের নিয়মিত মাদকবিরোধী অভিযানের অংশ হিসেবে শনিবার (১ জানুয়ারি) ভোর ছয়টা থেকে রোববার (২ জানুয়ারি) ভোর ছয়টা পর্যন্ত রাজধানীর বিভিন্ন থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার ও মাদকদ্রব্য উদ্ধার করা হয়।

রোববার সকালে ডিএমপির মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মো. ফারুক হোসেন এসব তথ্য জানান।

তিনি বলেন, গ্রেফতার ৩১ জনের কাছ থেকে ৪ হাজার ২ পিস ইয়াবা, ৫০ গ্রাম ১০০ পুরিয়া হেরোইন ও ৮ কেজি ৭৭০ গ্রাম ৪০ পুরিয়া গাঁজা জব্দ করা হয়।

গ্রেফতারদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে ২৮টি মামলা হয়েছে বলেও জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।


আরও খবর



মৎস্যসম্পদ ধ্বংসকারী অবৈধ জাল অপসারণে বিশেষ কম্বিং অপারেশন শুরু

প্রকাশিত:রবিবার ০২ জানুয়ারী 2০২2 | হালনাগাদ:রবিবার ০২ জানুয়ারী 2০২2 | ৪০০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

দেশের মৎস্যসম্পদ ধ্বংসকারী অবৈধ জাল অপসারণে বিশেষ কম্বিং অপারেশন শুরু করেছে সরকার। মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয় চলতি বছর ১৭টি জেলায় বেহুন্দী জাল, কারেন্টজালসহ মৎস্য সম্পদ ধ্বংসকারী সকল প্রকার অবৈধ জাল অপসারণে ৩০ দিনব্যাপী বিশেষ এ অভিযান পরিচালনা করছে। জাটকা ও সামুদ্রিক মাছের ডিম, লার্ভী ও পোনা রক্ষায় গত ৩০ ডিসেম্বর ২০২১ তারিখ থেকে থেকে শুরু হওয়া এ অভিযান চার ধাপে চলবে ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২২ পর্যন্ত।

বিশেষ কম্বিং অপারেশনের আওতাভুক্ত ১৭টি জেলা হচ্ছে পিরোজপুর, ঝালকাঠি, পটুয়াখালী, বরগুনা, ভোলা, বরিশাল, নোয়াখালী, বাগেরহাট, খুলনা, সাতক্ষীরা, কক্সবাজার, চট্টগ্রাম, মুন্সিগঞ্জ, লক্ষ্মীপুর, শরিয়তপুর, মাদারীপুর ও চাঁদপুর।

উল্লেখ্য, দি প্রটেকশন অ্যান্ড কনজারভেশন অব ফিশ রুলস্, ১৯৮৫ অনুযায়ী সরকার ২০১৩ সালে মৎস্য সম্পদ ধ্বংসকারী বেহুন্দি জাল, মশারি জাল, চরঘেরা জাল, বেড়/জগৎবেড় জাল, কারেন্ট জাল প্রভৃতি ক্ষতিকারক জালের ব্যবহার নিষিদ্ধ করে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে এবং ইলিশ আহরণের জালের ফাঁস ৬ দশমিক ৫ সেন্টিমিটার বা ২ দশমিক ৬ ইঞ্চি নির্ধারণ করেছে। মৎস্যসম্পদের জন্য ক্ষতিকর এসব জালের ব্যবহার বৃদ্ধি পেলে জাটকাসহ সামুদ্রিক ও উপকূলীয় বিভিন্ন প্রজাতির মাছের ডিম, রেণু ও পোনা বিনষ্ট হবে এবং উন্মুক্ত জলাশয়ে মাছের উৎপাদনে বিরূপ প্রভাব পড়ার পাশাপাশি জলজ জীববৈচিত্র্য নষ্ট হবে। সরকার কর্তৃক নিষিদ্ধঘোষিত এসব জাল ব্যবহারকারীকে সর্বোচ্চ ৫ হাজার টাকা জরিমানা অথবা ১ বছর থেকে সর্বোচ্চ ২ বছরের কারাদণ্ড অথবা উভয় দণ্ডে দন্ডিত করার বিধান রয়েছে।


আরও খবর



বাস চলাচলে ফের নতুন সিদ্ধান্ত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৩ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জানুয়ারী ২০২২ | ৪৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

করোনাভাইরাস সংক্রমণ কমাতে গণপরিবহনে অর্ধেক যাত্রী নিয়ে চলাচলের যে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল ২৪ ঘণ্টা পার হতে না হতেই সিদ্ধান্ত বদল করা হয়েছে। আগামী শনিবার থেকে যত আসন তত যাত্রী নিয়ে পরিবহন চলাচলের নির্দেশনা দিয়েছে সড়ক পরিবহন মালিক সমিতি।

বৃহস্পতিবার (১৩ জানুয়ারি) ঢাকা সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক খন্দকার এনায়েত উল্যাহ এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, বিআরটিএর চেয়ারম্যানের সঙ্গে আমাদের ফের আলোচনা হয়েছে। শনিবার থেকে গণপরিবহনের যত আসন তত যাত্রী নিয়ে চলাচলের বিষয়ে একমত হয়েছে বিআরটিএ। কারণ অর্ধেক যাত্রী নিয়ে পরিবহন চলাচল করলে যাত্রী ভোগান্তি বাড়বে।

খন্দকার এনায়েত উল্যাহ আরও বলেন, আমরা সব পরিবহন মালিকদের বিআরটিএর এই বার্তা পৌঁছে দিয়েছি। এক্ষেত্রে যারা সরকারের স্বাস্থ্যবিধি মানবে না তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


আরও খবর