আজঃ মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১
শিরোনাম

শতাব্দীর দীর্ঘতম চন্দ্রগ্রহণ শুক্রবার

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ নভেম্বর ২০২১ | ৭২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বছরের শেষ চন্দ্রগ্রহণ দেখা যাবে আগামীকাল ১৯ নভেম্বর শুক্রবার। এই গ্রহণেরও একাধিক গুরুত্ব রয়েছে। শতাব্দীর দীর্ঘতম চন্দ্রগ্রহণ এটি। তবে এটা পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ নয়। আংশিক চন্দ্রগ্রহণ। এই চন্দ্রগ্রহণের ১৫ দিন পর ৪ ডিসেম্বর সূর্যগ্রহণ। জ্যোতির্বিদরা জানিয়েছেন, ১৯ নভেম্বর শুক্রবার সকাল ১১টা বেজে ৩৪ মিনিট থেকে শুরু হবে এই চন্দ্রগ্রহণ । শেষ হবে বিকেল ৫টা বেজে ৩৩ মিনিটে।

উত্তর-পূর্ব ভারত থেকে দেখা যাবে এই চন্দ্রগ্রহণ। ভারতে মূলত অরুণাচল প্রদেশ ও আসাম থেকে দেখা যাবে গ্রহণ। ভারতের পাশাপাশি এই চন্দ্রগ্রহণ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, উত্তর ইউরোপ, পূর্ব এশিয়া, অস্ট্রেলিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল থেকেও দেখা যাবে। বাংলাদেশে এই গ্রহণ দেখার সম্ভাবনা নেই।

চন্দ্রগ্রহণ কখন হয়? বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা অনুযায়ী, পূর্ণিমার দিনে সূর্য ও চাঁদের মাঝে যখন পৃথিবী চলে আসে, সূর্য-পৃথিবী-চাঁদ যখন এক সরলরেখায় হয়ে যায়, তখনই চন্দ্রগ্রহণ হয়। এক্ষেত্রে পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ হয়।

অন্যদিকে পৃথিবী যখন ঘুরতে ঘুরতে সূর্য ও চাঁদের মাঝখানে চলে এলেও পুরোপুরি এক সরলরেখায় থাকে না, তখন হয় আংশিক চন্দ্রগ্রহণ। এক্ষেত্রে পুরো চাঁদটা নয়, চাঁদের একটা অংশ পৃথিবীর ছায়ায় ঢাকা পড়ে যায়।

৬৪৮ বছর পর দেখা যাবে এই ধরনের চন্দ্রগ্রহণ

জানা গিয়েছে, শেষবার ১৪৪০ সালে এই ধরনের চন্দ্রগ্রহণ দেখা গিয়েছে। ফের দেখা যাবে ২০২১-এর ১৯ নভেম্বর। এরপর ৬৪৮ বছর পর দেখা যাবে এই ধরনের চন্দ্রগ্রহণ। সালটা হবে ২৬৬৯ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি।


আরও খবর



আজ মওলানা ভাসানীর ৪৫তম মৃত্যুবার্ষিকী

প্রকাশিত:বুধবার ১৭ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ নভেম্বর ২০২১ | ৪৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আওয়ামী মুসলিম লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মজলুম জননেতা মওলানা আবদুল হামিদ খান ভাসানীর ৪৫তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ ১৭ নভেম্বর। ১৯৭৬ সালের এই দিনে ঢাকার তৎকালীন পিজি হাসপাতালে (বর্তমান বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়) চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন। পরে টাঙ্গাইলের সন্তোষে তাকে চিরনিদ্রায় শায়িত করা হয়। টাঙ্গাইলের সন্তোষে নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে যথাযোগ্য মর্যাদায় দিবসটি পালন করা হচ্ছে।

১৮৮০ সালের ১২ ডিসেম্বর সিরাজগঞ্জের ধানগড়া গ্রামে জন্ম গ্রহণ করেন মওলানা হামিদ খান ভাসানী। তবে তিনি বেড়ে উঠেছেন টাঙ্গাইলের সন্তোষে। তিনি কৈশোর থেকেই রাজনীতির সঙ্গে জড়িত ছিলেন। তিনি তৎকালীন বাংলা-আসাম প্রদেশ মুসলিম লীগের সভাপতি ছিলেন। তিনি ১৯৫৪ সালের নির্বাচনে যুক্তফ্রন্ট গঠনকারী প্রধান নেতাদের মধ্যে অন্যতম ছিলেন। বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় তিনি প্রবাসী সরকারের উপদেষ্টা ছিলেন।

৪৫তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে ঢাকা ও টাঙ্গাইলের সন্তোষে বিস্তারিত কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে।

বুধবার সকালে সন্তোষে ভাসানীর মাজারে পুস্পস্তবক অর্পণ এবং মোনাজাতের মধ্য দিয়ে দিনব্যাপী কর্মসূচির উদ্বোধন করেন মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর (অতিরিক্ত দায়িত্ব) প্রফেসর ডক্টর এ আর এম সোলাইমান।

এরপর আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টিসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-কর্মকর্তা-শিক্ষার্থী, মওলানা ভাসানীর পরিবার, টাঙ্গাইল প্রেসক্লাব, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন ও মওলানা ভাসানীর ভক্ত অনুসারীরা মাজারে পুস্পস্তবক অর্পণ এবং মোনাজাত করেন।

দিবসটি উপলক্ষে বিভিন্ন সংগঠন দিনব্যাপী নানা কর্মসূচি নিয়েছে। কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে আলোচনা সভা, বাউল গান পরিবেশন, মিলাদ, দোয়া মাহফিল, ওরশ, দুঃস্থদের মাঝে খাবার বিতরণসহ আরও বিভিন্ন আয়োজন।


আরও খবর



শিল্পার হাতে হাত, জামিন পেয়ে প্রথম জনসমক্ষে রাজ

প্রকাশিত:বুধবার ১০ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১০ নভেম্বর ২০২১ | ৪৭৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রাজ কুন্দ্রার উপর চিৎকার করে উঠেছিলেন শিল্পা শেট্টি। গ্রেফতারের পর পুলিশ যখন তাঁর স্বামীকে নিয়ে বাড়িতে তল্লাশি চালায়, নিজেকে ধরে রাখতে পারেননি শিল্পা। শোনা গিয়েছিল, রাজের থেকে দুই সন্তানকে নিয়ে আলাদা থাকবেন তিনি। কিন্তু সে সব গুঞ্জন এক তুড়িতে উড়িয়ে দিলেন বলিউডের এই বিতর্কিত দম্পতি।

পর্ন-কাণ্ডে জামিন পাওয়ার পর এই প্রথম জনসমক্ষে এলেন রাজ। সঙ্গে ছিলেন শিল্পা। ধর্মশালার একটি মন্দিরে একসঙ্গে পৌঁছে গেলেন তাঁরা। রাজের হাতে হাত রেখে এগিয়ে গেলেন শিল্পা। দুজনেই বেছে নিয়েছেন হলুদ পোশাক। রাজ এবং শিল্পার মুখে ঈষৎ হাসি। মনোমালিন্যের মেঘ সরিয়ে এখন তাঁরা খুশি।

দিন কয়েক আগেই আলিবাগ থেকে দুই সন্তানকে নিয়ে ঘুরে এসেছিলেন শিল্পা। রাজ জামিন পাওয়ার বৈষ্ণোদেবীর মন্দিরেও গিয়েছিলেন তিনি।

জুলাই মাসে পর্ন তৈরির অভিযোগে রাজকে গ্রেফতার করে মুম্বই পুলিশ। প্রায় দুমাস হাজতবাসের পর সেপ্টেম্বর মাসে জামিন পান শিল্পার স্বামী।

 

 


আরও খবর
শাকিব খানের ব্যাংক হিসাব তলব

সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১




মাদক বিরোধী অভিযানে আটক ১২৫

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ নভেম্বর ২০২১ | ৪৩০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রাজধানীতে মাদক বিরোধী অভিযানে বিক্রি ও সেবনের অপরাধে ১২৫ জনকে আটক করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি)। 

বুধবার (১৭ নভেম্বর) সকাল ছয়টা থেকে বৃহস্পতিবার  (১৮ নভেম্বর) সকাল ছয়টা পর্যন্ত রাজধানীর বিভিন্ন থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়।

ডিএমপির মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) হাফিজ আল আসাদ জানান, তাদের কাছ থেকে ৭,৫০৪ পিস ইয়াবা,  ৫৪৬ গ্রাম ৪৬০ পুরিয়া হেরোইন, ১৩.২ লিটার দেশি মদ, ৩৩ কেজি ৪৪০ গ্রাম গাঁজা, ১০টি নেশা জাতীয় ইনজেকশন, ৬০টি ট্যাপেনটাডিল ট্যাবলেট ও ৮০টি বুপ্রেনরফিন জব্দ করা হয়।

আসামিদের বিরুদ্ধে ডিএমপির থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে ৯৭ টি মামলা দায়ের করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।  


আরও খবর
মাদকবিরোধী অভিযানে আটক ৪৬

সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১




মেয়র জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা

প্রকাশিত:সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ | ১৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে কটূক্তি করায় গাজীপুর সিটি করপোরেশনের বহিষ্কৃত মেয়র জাহাঙ্গীর আলমের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হয়েছে। 

রোববার (২৮ নভেম্বর) ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক আসসামছ জগলুল হোসেনের আদালতে মামলাটি দায়ের করেন ওমর ফারুক আসিফ নামে এক আইনজীবী।

আদালত বাদীর জবানবন্দি গ্রহণ করে আগামী ৬ জানুয়ারির মধ্যে সিআইডিকে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন। 

মামলার বাদী ওমর ফারুক আসিফ আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা উপকমিটির সদস্য এবং ঢাকা আইনজীবী সমিতির সাবেক সহসম্পাদক। 

মামলার বিষয়ে আইনজীবী ওমর ফারুক আসিফ বলেন, বঙ্গবন্ধু, মুক্তিযুদ্ধ ও শহীদদের নিয়ে অবমাননার অভিযোগে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ২১ ধারায় এই মামলা করেছি। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে সিআইডিকে প্রতিবদেন দাখিলের নির্দেশ দেন। 

একই অভিযোগে এই আইনজীবীর মামলার আবেদন সোমবার ফিরিয়ে দেন ট্রাইব্যুনাল। 

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে কটূক্তি করার অভিযোগে গাজীপুর সিটি করপোরেশনের মেয়র অ্যাডভোকেট মো. জাহাঙ্গীর আলমকে আওয়ামী লীগ থেকে আজীবন বহিষ্কার করা হয়।

১৯ নভেম্বর বিকেল ৪টায় অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। এরপর ২৫ নভেম্বর মেয়র পদ থেকেও তাকে বহিষ্কার করা হয়।


আরও খবর



করোনা প্রতিরোধক ওষুধ বাজারে আনছে বেক্সিমকো

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৯ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৯ নভেম্বর ২০২১ | ৪৭৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

করোনাভাইরাস সংক্রমণরোধে অ্যান্টিভাইরাল ওরাল পিল বা মুখে খাওয়ার ওষুধ মলনুপিরাভিরদেশের বাজারে আনছে শীর্ষস্থানীয় ওষুধ প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান বেক্সিমকো ফার্মা। যার জেনেরিক সংস্করণের নাম হবে ইমোরিভির। আগামী সপ্তাহে বেক্সিমকোর তৈরি ক্যাপসুল ইমোরিভির বাজারে আসছে।

বেক্সিমকো ফার্মার চিফ অপারেটিং অফিসার (সিওও) রাব্বুর রেজা মঙ্গলবার (৯ নভেম্বর) দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, মুখে খাওয়ার প্রতিটি ওষুধের বাজার মূল্য ধরা হয়েছে ৭০ টাকা। চিকিৎসকের পরামর্শে ১৮ বছরের বেশি বয়সী করোনা আক্রান্ত রোগীকে সংক্রমণ প্রতিরোধে ৪০টি পিল খেতে হবে।

আজ মঙ্গলবার (৯ নভেম্বর) সকালে দেশে করোনাভাইরাসের চিকিৎসায় মুখে খাওয়ার নতুন ওষুধ মলনুপিরাভিরঅ্যান্টিভাইরাল ট্যাবলেট জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন দেয় ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তর।

এ বিষয়ে ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মো. সালাউদ্দিন মঙ্গলবার সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করে একটি গণমাধ্যমকে বলেন, করোনাভাইরাস প্রতিরোধী খাওয়ার ওষুধ মলনুপিরাভির দেশে উৎপাদন ও ব্যবহারের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। স্কয়ার, বেক্সিমকো, রেনেটা, ইনসেপ্টা, এসকেএফ, জেনারেল, বিকনসহ ৮ থেকে ১০টি ওষুধ প্রস্ততকারী প্রতিষ্ঠানে আবেদন করেছে। তবে শুধু বেক্সিমকোকে অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। যদিও অনুমোদন প্রক্রিয়ায় আরও প্রতিষ্ঠান রয়েছে। এটি দেশেই উৎপাদন করা হবে। সবকিছু ঠিক থাকলে এটি এখন দেশে জরুরি ব্যবহার করা যাবে।

চলতি মাসেই যুক্তরাষ্ট্রের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা মেডিসিনস অ্যান্ড হেলথকেয়ার রেগুলেটরি এজেন্সির (এমএইচআরএ) এই ওষুধটি দেয়। সর্দি-জ্বরের চিকিৎসার জন্য তৈরি করা মলনুপিরাভিরবড়ি করোনা আক্রান্ত রোগীর সেবায় পরীক্ষামূলকভাবে প্রয়োগ করে আশানুরূপ ফল পাওয়া গেছে। এই বড়ি সেবনে হাসপাতালে ভর্তি বা মৃত্যুর ঝুঁকি অর্ধেক কমেছে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

উল্লেখ্য, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের দুই কোম্পানি মার্ক শার্প অ্যান্ড ডোম (এমএসডি) ও রিজেবাক বায়োথেরাপিউটিক যৌথভাবে তৈরি করেছে লাগেভ্রিও (মলনুপিরাভির) নামে মুখে খাওয়ার এই ওষুধ। ওষুধটি সেবন করলে করোনায় আক্রান্তদের মৃত্যু কমবে। ওষুধটি পাঁচদিন আগে যুক্তরাজ্য সরকার অনুমোদন দিয়েছে।


আরও খবর