আজঃ রবিবার ২৪ অক্টোবর ২০২১
শিরোনাম

উরুগুয়েকে ৩-০ গোলে হারিয়ে জয়ে ফিরল আর্জেন্টিনা

প্রকাশিত:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | ৪৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

শুরুটা করেছিলেন লিওনেল মেসি। এরপর রদ্রিগো ডি পল, লাওতারো মার্টিনেজদের কল্যাণে আর্জেন্টিনা পেল আরও দুই গোল। তাতে উরুগুয়েকে ৩-০ গোলে হারিয়ে এক ম্যাচ পর জয়ে ফেরাটাও হয়ে গেল কোচ লিওনেল স্ক্যালোনির শিষ্যদের।

আগের ম্যাচে প্যারাগুয়ের বিপক্ষে দারুণ খেলে, আধিপত্য বিস্তার করেও জিততে পারেনি স্ক্যালোনির দল। এক ম্যাচ পরই জয়ে ফিরলেন মেসিরা। তবে স্কোরলাইন যতটা সহজ বলছে, আর্জেন্টিনার জয়টা ততটা সহজেও আসেনি। প্রথমার্ধে কম করে হলেও তিনটি নিশ্চিত গোলের হাত থেকে দলকে বাঁচিয়েছেন গোলরক্ষক এমিলিয়ানো মার্টিনেজ।

শুরুটা হয়েছিল ম্যাচের অষ্টম মিনিটে। লুইস সুয়ারেজের দারুণ এক বাইসাইকেল কিক রুখে দেন তিনি। এর কিছু পরে আবারও দৃশ্যপটে সেই সুয়ারেজ। দুরূহ কোণ থেকে করা তার শট কোনোক্রমে ঠেকান মার্টিনেজ, এরপর ফিরতি চেষ্টায় ফেদেরিকো ভালভার্দের জোরালো শটও রুখে দেন অ্যাস্টন ভিলা গোলরক্ষক। ফলে শুরুর ২০ মিনিটেই দুবার বড় বিপদে পড়তে পড়তেও রক্ষা পায় আর্জেন্টিনা।

নিজেদের মাঠ এস্তাদিও মন্যুমেন্তালে আর্জেন্টিনা ম্যাচে ফিরেছে এরপর। লাওতারো মার্টিনেজ সহজ সুযোগ নষ্ট করেছেন দুটো, জিওভানি লো চেলসোর শট ফিরেছে ক্রসবারে প্রতিহত হয়ে। এরপর মেসির দুটো শট রুখে দিয়েছেন উরুগুয়ে গোলরক্ষক ফার্নান্দো মুসলেরা, তাতে আর্জেন্টিনার গোলের অপেক্ষাটা বাড়ছিল ক্রমেই। 

আর্জেন্টিনার সে অপেক্ষাটা শেষ হয় ম্যাচের ৩৮ মিনিটে। তাতে অনেকটা ভাগ্যের ছোঁয়াও ছিল বৈকি। বক্সের অনেকটা বাইরে থেকে উরুগুয়ে বিপদসীমায় একটা পাস লব করে বাড়িয়েছিলেন মেসি। স্ট্রাইকার লাওতারো ছুঁতে পারেননি সেটা, এরপর গোলরক্ষক মুসলেরাকেও ফাঁকি দিয়ে বলটা আছড়ে পড়ে উরুগুয়ের জালে। তাতে মেসি ছুঁয়ে ফেলেন ৮০ গোলের মাইলফলক। এমন এক কীর্তি যা নেই কোনো দক্ষিণ আমেরিকান ফুটবলারের।

প্রথম গোলের অপেক্ষা শেষ হতে না হতেই বিরতির আগে আরও এক গোল পেয়ে যায় আর্জেন্টিনা। ৪৪ মিনিটে বক্সের জটলা থেকে টটেনহ্যাম মিডফিল্ডার জিওভানি লো চেলসোর বাড়ানো বল থেকে গোলটি করেন রদ্রিগো ডি পল। ফলে দুই গোলের লিড নিয়ে প্রথমার্ধ শেষ করে আর্জেন্টিনা।

দ্বিতীয়ার্ধেও শুরু থেকে ছিল আর্জেন্টিনার দাপট। উরুগুয়ের ম্যাচে ফেরার আশা শেষ করে দেওয়া গোলটা এল ৬২ মিনিটে। বক্সের জটলা থেকে মেসির বাড়ানো পাসে ডান প্রান্তে ডি পল পেয়ে যান বলটা, সেখান থেকে তার নিচু ক্রস সহজেই জালে পাঠান সদ্য ইনজুরিফেরত লাওতারো। তিন গোলে এগিয়ে যায় আর্জেন্টিনা।

এরপরও মেসি, আনহেল ডি মারিয়ারা গোলের চেষ্টা করে গেছেন। সুয়ারেজরাও চেষ্টা করেছেন ব্যবধান ঘোচানোর। তবে কোনো চেষ্টাই সফলতার মুখ দেখেনি আর। ফলে ৩-০ গোলের সহজ এক জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে আর্জেন্টিনা। ১০ ম্যাচ শেষে ছয় জয় আর চারটি ড্রয়ে দলটির সংগ্রহ ২২ পয়েন্ট। আছে কনমেবল অঞ্চলের বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের দ্বিতীয় অবস্থানে। দিনের অন্য ম্যাচে কলম্বিয়ার বিপক্ষে ড্র করা ব্রাজিল আছে তালিকার শীর্ষে। দশ ম্যাচে এক ড্র আর নয় জয় নিয়ে দলটির সংগ্রহ ২৮ পয়েন্ট। নিজেদের পরবর্তী ম্যাচে আগামী ১৫ অক্টোবর এই মন্যুমেন্তাল স্টেডিয়ামেই পেরুর বিপক্ষে খেলবে স্ক্যালোনির শিষ্যরা।

 

নিউজ ট্যাগ: আর্জেন্টিনা

আরও খবর
অজিদের কষ্টার্জিত জয়

শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১




টাকা-স্বর্ণালঙ্কার নিয়ে একসঙ্গে ৩ বান্ধবী উধাও

প্রকাশিত:শুক্রবার ০১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০১ অক্টোবর ২০২১ | ৮০০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রাজধানীর পল্লবীতে কলেজ পড়ুয়া তিন বান্ধবী বাসা থেকে নগদ টাকা, স্বর্ণালঙ্কার, স্কুল সার্টিফিকেট ও মূল্যবান সামগ্রী নিয়ে উধাও হয়ে গেছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল থেকে পরিবারের সদস্যরা তাদের খুঁজে পাচ্ছেন না। এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে।

পরিবারের দাবি বিদেশে নেওয়ার প্রলোভনে তাদেরকে নিয়ে গেছে একটি নারী পাচারকারী চক্র। এ জন্য তারা বাসা থেকে অর্থ ও স্বর্ণালঙ্কার নিয়ে পালিয়েছে।  

নিখোঁজ তিন শিক্ষার্থী হলেন, কাজী দিলখুশ জান্নাত নিসা, কানিজ ফাতেমা ও স্নেহা আক্তার। তারা সবাই দ্বাদশ শ্রেণির  শিক্ষার্থী।

এর মধ্যে নিসা মিরপুর গার্লস আইডিয়াল ল্যাবরেটরি ইনস্টিটিউট, স্নেহা পল্লবী ডিগ্রি কলেজ ও কানিজ দুয়ারিপাড়া কলেজের শিক্ষার্থী।

এ ঘটনায় নিসার মা মাহমুদা আক্তার শুক্রবার পল্লবী থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন।

অভিযোগে যাদের বিবাদী করা হয়েছে, তারা হলেন তরিকুল, রকিবুল ও জিনিয়া। এর মধ্যে জিনিয়া টিকটকের পরিচিত মুখ। আর তরিকুল ও রকিবুল সহোদর। 

অভিযোগে মাহমুদা জানান, তার মেয়ে নিসা ও তার দুই বান্ধবী কানিজ ফাতেমা ও স্নেহাকে বিদেশে নেওয়ার প্রলোভন দেখিয়ে ঘরছাড়া করেছে একটি নারী পাচারকারী চক্র। পরিবারের কাউকে কিছু না বলে গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল  ৯টায় সবাই নিজ নিজ বাসা থেকে একযোগে বের হয়। বের হওয়ার সময় সবাই বাসা থেকে কয়েক লাখ টাকা, গহনা, স্কুল সার্টিফিকেট ও দামি মোবাইল নিয়ে গেছে।

জান্নাতের বড় বোন আইনজীবী কাজী রওশন দিল আফরোজ বলেন, আমার বোন ও তার বান্ধীদের বিদেশে নেওয়ার প্রলোভন দেখানো হয়েছে। এ জন্য তারা গতকাল প্ল্যানিং করে বাড়ি ছেড়ে পালিয়েছে। গতকাল সকালে সবাই কলেজের পোশাক পরে বের হয়েছে। সবার কাঁধে কলেজের ব্যাগ ছিল।

তাদের মহল্লার প্রতিবেশী তরিকুল, রকিবুল ও জিনিয়া এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত বলে দাবি করেন তিনি।

পল্লবী থানার এসআই সজিব খান বলেন, অভিযোগ পাওয়ার পর তরিকুলকে আটক করেছি। তাকে থানায় জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। পল্লবী থানার ওসি পারভেজ ইসলাম  বলেন, আমরা এ ব্যাপারে তদন্ত করছি।


আরও খবর
ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযানে আটক ৭৩

শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১




ধর্মীয় অনুভুতিতে আঘাতের ষড়যন্ত্র করছে স্বাধীনতা বিরোধীরা : তাজুল ইসলাম

প্রকাশিত:শুক্রবার ২২ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২২ অক্টোবর ২০২১ | ২২৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

স্থানীয় সরকার,পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী তাজুল ইসলাম এমপি বলেছেন, ধর্মীয় অনুভুতিতে আঘাতের ষড়যন্ত্র করছে স্বাধীনতা বিরোধীরা। তারা নতুন করে তাঁরা দেশকে অস্থিতিশীল করতে চায়। তাই তাঁরা ধর্মীয় অনুভুতিতে আঘাত করছে।

শুক্রবার (২২ অক্টোবর) বিকেলে পঞ্চগড়ের বোদা পৌরসভায় এক পথ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

মন্ত্রী আরো বলেন, বাংলাদেশে হিন্দু, মুসলিম, বৌদ্ধ ও খ্রিস্টান সকল গোষ্টির মানুষেরা সমান ভাবে সকল সুযোগ সুবিধা ভোগ করতে পারবে। শেখ হাসিনার শাসনামলে জাতিগত কোনো ভেদাভেদ নেই। দলমত নির্বিশেষে সকলেই আমরা দেশের জন্য কাজ করবো।

বোদা পৌরসভার চত্বরে পৌর মেয়র এ্যাডভোকেট ওয়াহিদুজ্জামান সুজার সভাপতিত্বে এসময় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন রেলপথ মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী এ্যাডভোকেট নূরুল ইসলাম সুজন।

এসময় রেলমন্ত্রী তার বক্তব্যে বলেন, শেখ হাসিনা বর্তমানে বিশ্বের রোল মডেল। তার সঠিক দিক নির্দেশনায় দেশ আয় উন্নয়নশীল দেশের কাতারে। পথসভা শেষে মন্ত্রী পৌর চত্বরে দুটি গাছের চারা রোপন করেন। পরে মন্ত্রী উপজেলার ময়দানদিঘি ইউনিয়নের সাবেক সিটমহল এলাকার বিভিন্ন কাজের পরিদর্শন করেন।


আরও খবর



রূপগঞ্জে শেখ রাসেলের ৫৭ তম জন্মবার্ষিকী পালিত

প্রকাশিত:সোমবার ১৮ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ১৮ অক্টোবর ২০২১ | ৩৫০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রূপগঞ্জ ( নারায়ণগঞ্জ) প্রতিনিধি :

জাতিরজনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কনিষ্ট পুত্র শহীদ শেখ রাসেলের ৫৭তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষ্যে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার বিকেলে রূপগঞ্জের পার্শ্ববর্তী বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় রংধনু গ্রুপের প্রধান কার্যালয় রংধনু বিজনেস পয়েন্ট অডিটরিয়ামে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এ সময় রফিকুল ইসলাম বলেন, জাতিরজনকের পুত্র শিশু রাসেলকে হত্যার মাধ্যমে খুনীরা প্রমান করেছে তারা দেশের মানচিত্র আর স্বাধীনতার ইতিহাস মুছে ফেলার চেষ্টা করেছিল। এসময় শহিদ শেখ রাসেলসহ বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের সদস্যদের হত্যার সাথে জড়িত পলাতক খুনীদের দেশে ফিরিয়ে এনে রায় বাস্তবায়নের দাবি জানান তিনি।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শেখ রাসেল জাতীয় শিশু-কিশোর পরিষদের নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার উপদেষ্টা ও রংধনু গ্রুপের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব রফিকুল ইসলাম। উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সিনিয়র সহ-সভাপতি আবুল বাশার টুকুর সভাপতিত্বে এসময় উপস্থিত ছিলেন,  কায়েতপাড়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী মোঃ মিজানুর রহমান, যুবলীগ নেতা হাজী সফিকুল ইসলাম বাদল, বিল্লাল হোসেন, সাদ্দাম হোসেন,তরুনলীগের সভাপতি সলিমুল্লাহ সেলিম, ছাত্রলীগ নেতা লুৎফর রহমান মুন্না, আশফাকুল ইসলাম তুষার, আশরাফুল হক ভুইয়া জেমিন প্রমুখ।


আরও খবর
রূপগঞ্জে নির্বাচনী সভা অনুষ্ঠিত

শুক্রবার ০৮ অক্টোবর ২০২১




সিনহা হত্যা মামলা : পঞ্চম দফায় দ্বিতীয় দিনের সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু

প্রকাশিত:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | ৩৮০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
এর আগে আজ সোমবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে কক্সবাজার জেলা কারাগার থেকে মামলার ১৫ আসামিকে প্রিজন ভ্যানে করে কড়া নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে আদালতে নেওয়া হয়

সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান হত্যা মামলায় পঞ্চম দফার দ্বিতীয় দিনের সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়েছে। আজ সোমবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ২৭তম সাক্ষী সেনাসদস্য সার্জেন্ট জিয়াউর রহমানের সাক্ষ্যগ্রহণের মধ্য দিয়ে আদালতের বিচারিক কার্যক্রম শুরু হয়।

কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) অ্যাডভোকেট ফরিদুল আলম জানিয়েছেন, আজ সিনহা হত্যা মামলায় পাঁচজন সাক্ষীকে আদালতে উপস্থাপন করা হয়। এর মধ্যে দুজন সেনাসদস্য, ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেলা সদর হাসপাতালের দুজন কর্মচারী (ডোম) ও একজন পুলিশ কনস্টেবল রয়েছেন।

অ্যাডভোকেট ফরিদুল আলম আরও জানান, গতকাল রোববার পর্যন্ত এ মামলার ২৬ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ শেষ হয়। গতকাল এক সেনা কর্মকর্তাসহ ছয়জন সেনাসদস্য সাক্ষ্য দিয়েছেন।

এর আগে আজ সোমবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে কক্সবাজার জেলা কারাগার থেকে মামলার ১৫ আসামিকে প্রিজন ভ্যানে করে কড়া নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে আদালতে নেওয়া হয়।

মামলার নথি থেকে জানা গেছে, গত বছরের ৩১ জুলাই রাতে কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়কের টেকনাফ উপজেলার বাহারছড়া ইউনিয়নের শামলাপুর চেকপোস্টে পুলিশের গুলিতে নিহত হন সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান।

এ ঘটনায় সে সময় সিনহার বোন শারমিন শাহরিয়া ফেরদৌস বাদী হয়ে টেকনাফ থানার সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাশ ও বাহারছড়া তদন্তকেন্দ্রের সাবেক ইনচার্জ পরিদর্শক লিয়াকত আলীসহ নয় পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে মামলা করেন।

মামলায় প্রধান আসামি করা হয় লিয়াকত আলীকে। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে র‌্যাবকে তদন্তের দায়িত্ব দেয়। এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে টেকনাফ থানায় একটি এবং রামু থানায় আরেকটি মামলা করে। এরপর মেজর সিনহা নিহতের ছয় দিন পর লিয়াকত আলী ও ওসি প্রদীপসহ সাত পুলিশ সদস্য আদালতে আত্মসমর্পণ করেন। পরে ঘটনায় সংশ্লিষ্টতা পাওয়ার অভিযোগে টেকনাফ থানায় পুলিশের করা মামলার তিন সাক্ষী এবং শামলাপুর চেকপোস্টে ঘটনার সময় দায়িত্ব পালনকারি আমর্ড পুলিশ ব্যাটালিয়নের (এপিবিএন) তিন সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়। এরপর টেকনাফ থানার সাবেক কনস্টেবল রুবেল শর্মাকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব। গত ২৪ জুন মামলার অন্য পলাতক আসামি টেকনাফ থানার সাবেক এএসআই সাগর দেব আদালতে আত্মসমর্পণ করেন।

আসামিদের মধ্যে ওসি প্রদীপ ও কনস্টেবল রুবেল শর্মা ছাড়া অন্য ১২ জন আসামি আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। তদন্ত শেষে গত বছর ১৩ ডিসেম্বর মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা তৎকালীন র‌্যাব-১৫-এর সহকারী পুলিশ সুপার মো. খাইরুল ইসলাম ১৫ জনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। এতে সাক্ষী করা হয় ৮৩ জনকে।


আরও খবর
ইকবালসহ ৪ আসামির রিমান্ড মঞ্জুর

শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১




ভোলায় ৫০ লাখ মিটার কারেন্ট জাল জব্দ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৪৭০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জের মেঘনা নদী ও ভোলার ইলিশা ফেরিঘাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৫০ লাখ মিটার নতুন কারেন্ট জাল জব্দ করেছে কোস্টগার্ড।

মঙ্গলবার সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কোস্টগার্ড দক্ষিণ জোনের মিডিয়া কর্মকর্তা লে. এসএম তাহসিন রহমান।

এর আগে বাংলাদেশ কোস্টগার্ড দক্ষিণ জোনের অধীনস্থ ভোলা বেইস ও কালীগঞ্জ স্টেশনে পৃথক দুটি অভিযান পরিচালনা করা হয়।

অভিযানে ভোলা সদর উপজেলাধীন ইলিশা ফেরিঘাটে এমভি কনকচাঁপা ফেরিতে অভিযান চালিয়ে সেখানে থাকা একটি মাইক্রোবাস থেকে বস্তাবোঝাই ২০ লাখ মিটার এবং বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলাসংলগ্ন মেঘনা নদীতে একটি ইঞ্জিনচালিত স্টিলবডি বোট থেকে ৩০ লাখ মিটার কারেন্ট জাল জব্দ করা হয়।

উদ্ধারকৃত এসব জালের আনুমানিক বাজারমূল্য ১৭ কোটি ৫০ লাখ টাকা। পরে সেসব জাল মৎস্য কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে পুড়িয়ে ধ্বংস করা হয়েছে।

 


আরও খবর